না.গঞ্জে প্রাথমিক ইবতেদায়ীতে বেড়েছে পাশের হার

সিটি করেসপন্ডেন্ট || নিউজ নারায়ণগঞ্জ ০৯:৪৭ পিএম, ২৪ ডিসেম্বর ২০১৮ সোমবার

না.গঞ্জে প্রাথমিক ইবতেদায়ীতে বেড়েছে পাশের হার

গত বছরের তুলনায় এবছর প্রাথমিক ও ইবতেদায়ীতে বেড়েছে পাশের হার। বেড়েছে জিপিএ ৫।

গত বছর অর্থাৎ ২০১৭ সালে নারায়ণগঞ্জ জেলা থেকে প্রাথমিক শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষায় ৫৩ হাজার ৫০৯ জন পরীক্ষার্থী অংশ নেয়। যার মধ্যে জিপিএ ৫ পেয়েছিল ৬ হাজার ৬২৬ জন। এর মধ্যে বালক পেয়েছিল ২৪৯০ জন ও বালিকা ৪১৩৬ জন। নারায়ণগঞ্জ জেলায় প্রাথমিক শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষায় পাশের হার ছিল ৯৮.৪৫%। এরমধ্যে পাশের হারে মেয়েরা ৯৮.৪২% এবং ছেলেরা ৯৮.৪৮%। এছাড়া ইবতেদায়ী শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষায় অংশ নিয়েছিল ৩ হাজার ৭২৪ জন। পাশের হার ৯৩.৭২%। জিপিএ ৫ পেয়েছে ১০৫ জন। এর মধ্যে বালকদের মধ্যে জিপিএ ৫ পেয়েছে ৪৮ জন ও বালিকাদের মধ্যে জিপিএ ৫ পেয়েছে ৫৭ জন। এরমধ্যে পাশের হারে মেয়েরা ৯৩.৬২% এবং ছেলেরা ৯৩.৮৩%।

চলতি বছর অর্থাৎ ২০১৮ সালে নারায়ণগঞ্জে প্রাথমিক শিক্ষা সমাপনী (পিইসি) পরীক্ষায় পাশের হার ৯৯.৪১%। জিপিএ ৫ পেয়েছে ৭ হাজার ৬৯৮ জন। অপরদিকে ইবতেদায়ী শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষায় পাশের হার ৯৭.৫৮%। জিপিএ ৫ পেয়েছে ২১৮ জন। এ বছর উভয় মাধ্যমে ৫২ হাজার ৫৫ জন শিক্ষার্থী সকল বিষয়ে পরীক্ষায় অংশ গ্রহণ করেছে। পিইসি পরীক্ষায় ২৩ হাজার ৮৭৪ জন বালক অংশ নিয়েছিল। পাশের হার ৯৯.২৬ শতাংশ। জিপিএ ৫ পেয়েছে ৩ হাজার ১৩৮ জন। অপরদিকে ২৭ হাজার ৭৩৩ জন বালিকা অংশ নিয়েছিল। পাশের হার ৯৯.৫৫ শতাংশ। জিপিএ ৫ পেয়েছে ৪ হাজার ৫৬০ জন।

অপরদিকে ইবতেদায়ী পরীক্ষায় এবছর ১ হাজার ৯১৭ জন বালক অংশ নিয়েছিল। পাশের হার ৯৭.৪ শতাংশ। জিপিএ ৮৯ জন। অপরদিকে ১ হাজার ৮১৮ জন বালিকা অংশ নিয়েছিল। পাশের হার ৯৭.৭৬ শতাংশ। জিপিএ ৫ পেয়েছে ১২৯ জন।


বিভাগ : শিক্ষাঙ্গন


নিউজ নারায়ণগঞ্জ এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আরো খবর
এই বিভাগের আরও