‘সৌরভ আমাদের সহপাঠী একই ক্লাসে পড়ি মারার তো প্রশ্নই উঠে না’

সিটি করেসপন্ডেন্ট || নিউজ নারায়ণগঞ্জ ০৬:১৯ পিএম, ২৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯ রবিবার

‘সৌরভ আমাদের সহপাঠী একই ক্লাসে পড়ি মারার তো প্রশ্নই উঠে না’

নারায়ণগঞ্জ সরকারি তোলারাম কলেজের প্রাণী বিদ্যা বিভাগের ৩য় বর্ষের শিক্ষার্থী সংবাদকর্মী সৌরভ হোসেন সিয়ামকে পিটানোর অভিযোগকে মিথ্যা দাবী করে সংবাদ সম্মেলন করেছে প্রাণী বিদ্যা বিভাগের শিক্ষার্থীরা।

২৯ সেপ্টেম্বর রবিবার দুপুরে কলেজ প্রাঙ্গনে শিক্ষার্থীদের সংবাদ সম্মেলন শেষে আনুষ্ঠানিক ভাবে বিবৃতি দিয়েছেন কলেজের অধ্যক্ষ বেলা রানী সিংহ।

সংবাদ সম্মেলনে শিক্ষার্থী প্রিয়া বলেন, বিগত সময়ে কলেজের বিরুদ্ধে মিথ্যা অপপ্রচার চালিয়ে সৌরভ। এর আগে আমাদের এক শ্রদ্ধেয় এক শিক্ষকের বিরুদ্ধেও অপপ্রচার চালিয়েছে। ঘটনার সময় ছাত্র-ছাত্রী সংসদের উদ্যোগে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার জন্মদিন উপলক্ষ্যে মিলাদ ও দোয়া মাহফিল চলছিল। আর যাদের বিরুদ্ধে সৌরভ অভিযোগ করেছেন তারা ওই মিলাদ ও দোয়া মাহফিলে উপস্থিত ছিলেন। যার ছবিও রয়েছে। একটা মানুষ দুইটি স্থানে উপস্থিত থাকবে এটা কোন ভাবেই সম্ভব না। সৌরভ মিথ্যাচার করছে। যে ঘটনা ঘটেনি তা নিয়ে কলেজের এতোদিনের গৌরভ নষ্ঠ করতে চাইছে। কলেজের এতো দিনের গৌরব, ঐতিহ্য ও সুনাম কেউ নষ্ট করতে চাইছে আমরা তা মেনে নিবো না। আমরা অবশ্যই এর প্রতিবাদ করবো।

পরশ বলেন, সৌরভ আমাদের সহপাঠী। আমরা একই ক্লাসে পড়ি। ও আমাদের ভাই-বন্ধু। ওকে মারা তো প্রশ্নই উঠে না।

এ ব্যাপারে কলেজের অধ্যক্ষ বেলা রানী সিংহ বলেন, ঘটনার সময় মিলাদ মাহফিলে ছিলাম আমরা। সৌরভের বড় পরিচয় ও আমার ছাত্র। ঘটনার পর থেকে ও আমাকে কিছুই বলেনি। মিলাদ মাহফিল শেষে পুলিশ আমার কাছ ঘটনা সম্পর্কে জানতে চেয়েছিল। আমি তাদের বলেছি আমি মিলাদ মাহফিলে ছিলাম। পরবর্তিতে আমি প্রাণী বিদ্যা বিভাগের শিক্ষকদের ডেকে এনে কথা বলেছি। তারা মারামারি দেখেনি। তারপরও আমি আগামীকাল উভয় পক্ষকে ডেকেছি। তাদের সাথে কথা বলে যথাযথ ব্যবস্থা নিবো।

প্রসঙ্গত নারায়ণগঞ্জে সংবাদ প্রকাশের জের ধরে সরকারী তোলারাম কলেজে ফরম ফিলাপ করতে গিয়ে স্থানীয় একটি অনলাইন নিউজ পোর্টালের সাংবাদিককে মারধরের অভিযোগ উঠেছে ছাত্রলীগের নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে। শনিবার দুপুরে কলেজের ভেতরে ওই হামলার ঘটনা ঘটে দাবী করেন ওই সাংবাদিক যিনি গত বছরও একই কলেজে আক্রান্ত হয়েছিলেন। তবে ছাত্রলীগ দাবী করেছে হামলার ঘটনা তাদের জানা নাই।

আক্রান্ত ওই সাংবাদিক সৌরভ হোসেন সিয়াম (২৪) নিউজ পোর্টাল প্রেস নারায়ণগঞ্জের চিফ রিপোর্টার। একই সঙ্গে তিনি প্রথম আলো বন্ধু সভার তথ্য ও প্রযুক্তি বিষয়ক সম্পাদক।

শনিবার সন্ধ্যা ৬টায় নারায়ণগঞ্জ প্রেসক্লাবের হানিফ খান মিলনায়তনে সংবাদ সম্মেলনে সিয়াম জানান, তিনি সরকারি তোলারাম কলেজের প্রাণীবিদ্যা বিভাগের তৃতীয় বর্ষের ছাত্র। সকাল ১১টায় ৩য় বর্ষের ফরম ফিলআপ করতে গেলে নারায়ণগঞ্জ মহানগর ছাত্রলীগের প্রচার সম্পাদক পিয়াস প্রধান, সহ সম্পাদক শেখ হাবিবুর রহমান তামিম, উপ সাংস্কৃতিক সম্পাদক মেহেদী হাসান প্রিন্স, কলেজ শাখা ছাত্রলীগ নেতা সার্থক আহমেদ তোফা, শাহরিয়ার পরশ সহ অজ্ঞাত আরো ১০ থেকে ১২ জন প্রাণীবিদ্যা বিভাগের ভেতরে প্রবেশ করে। তারা দীর্ঘক্ষণ আমাকে অনুসরণ করতে থাকে। এর আগে ২০১৮ সালের ২৩ এপ্রিল এরাই আমাকে সংবাদ প্রকাশের জের ধরে মারধর করেছিল। সোয়া ১২টায় এরা ডিপার্টমেন্টে ভেতরে আমাকে ঘিরে এলোপাথারি কিলঘুষি মারতে থাকে। এক পর্যায়ে পুলিশে অভিযোগ দিলে মেরে ফেলার হুমকি দেয়। পরে এক শিক্ষকের সহায়তায় আমি সেখান থেকে বের হয়ে আসি।

মহানগর ছাত্রলীগের সভাপতি হাবিবুর রহমান রিয়াদ বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার জন্মদিন উপলক্ষে কলেজে একটি সভা ছিল। সেখানে সকাল ১০টা থেকে ১টা পর্যন্ত আমরা উপস্থিত ছিলাম। এর পর কোন ছাত্রের উপর হামলা বা মারধরের কোন অভিযোগ পাইনি। কোন অভিযোগ পেলে আমরা ব্যবস্থা গ্রহণ করবো।


বিভাগ : শিক্ষাঙ্গন


নিউজ নারায়ণগঞ্জ এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আরো খবর
এই বিভাগের আরও

আরো খবর