ডেঙ্গুজ্বরে জেএসসি পরীক্ষার্থীর মৃত্যু

সিটি করেসপন্ডেন্ট || নিউজ নারায়ণগঞ্জ ০৮:৫৫ পিএম, ৬ নভেম্বর ২০১৯ বুধবার

ডেঙ্গুজ্বরে জেএসসি পরীক্ষার্থীর মৃত্যু

নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলার ফতুল্লার হাজীগঞ্জ এলাকায় ডেঙ্গু জ্বরে আক্রান্ত হয়ে মো. আব্দুল্লাহ (১২) নামের এক জেএসসি পরীক্ষার্থীর মৃত্যু হয়েছে। বুধবার (৬ নভেম্বর) ভোরে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়।

মো. আব্দুল্লাহ হাজীগঞ্জ এলাকায় অবস্থিত মুক্তিযোদ্ধা স্মৃতি বিদ্যানিকেতনের জেএসসি পরীক্ষার্থী ছিল। জ্বর নিয়ে নিয়েই মঙ্গলবার পর্যন্ত জেএসসির ৩টি পরীক্ষাতেই অংশগ্রহণ করেছিল সে। আব্দুল্লার বাবা মো. আব্দুল হাকিম পেশায় দিনমজুর।

মো. আব্দুল হাকিম জানান, গত ২ নভেম্বর জেএসসি পরীক্ষা শুরু হওয়ার পর থেকেই তার ছেলে জ্বর অনুভব করে। পরের দিন স্থানীয় মাস্টার মেডিসিন কর্নার থেকে ওষুধ এনে খাওয়ার পর জ্বরের তাপমাত্রা কিছুটা কমে আসে। এ অবস্থাতেই আব্দুল্লাহ পরীক্ষা দিয়ে আসছিলো।

মঙ্গলবার (৫ নভেম্বর) পরীক্ষা দিয়ে আসার পর শরীরের তাপমাত্রা বাড়তে থাকায় দুপুরের দিকে তাকে নারায়ণগঞ্জ ১০০ শয্যাবিশিষ্ট জেনারেল (ভিক্টেরিয়া) হাসপাতালে নেয়া হয়। হাসপাতালের জরুরি বিভাগ থেকে তাকে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে বাসায় ফেরত পাঠায়।

রাত ১০টার দিকে রক্ত বমি করার পর আব্দুল্লাহর অবস্থা আরও বেগতিক হলে তাকে আবারও ভিক্টেরিয়া হাসপাতালের নেয়া হয়। সেখান থেকে কিছু পরীক্ষা দেয়া হয়। পরীক্ষার রিপোর্টে রক্তের স্বাভাবিক প্লাটিলেট দেড় লাখ থাকার স্থলে ৩২ হাজারে নেমে আসায় ভিক্টেরিয়া থেকে তাকে দ্রুত ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফার্ড করা হয়। সেখানে বুধবার ভোর সাড়ে ৪টার দিকে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যায় আব্দুল্লাহ।

আব্দুল্লাহর বড় বোন রাবেয়া আক্তার বলেন, ‘ঢাকা মেডিকেল হাসপাতাল থেকে তাদের জানানো হয়েছে তার ভাই ডেঙ্গু জ্বরে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছে।’

মুক্তিযোদ্ধা স্মৃতি বিদ্যা নিকেতনের শিক্ষক নাদিরা রহমান জানান, নিহত আব্দুল্লাহ তাদের স্কুলের জেএসসি পরীক্ষার্থীদের মধ্যে নিয়মিত ছাত্র ছিলো। তার ক্লাস রোল ছিলো ১৯। তার মৃত্যুর খবর শুনে শিক্ষক শিক্ষার্থী সকলেই শোকাহত।

নারায়ণগঞ্জের সিভিল সার্জন ডা. মোহাম্মদ ইমতিয়াজ জানান, ওই ছেলেটিকে মঙ্গলবার সকালে হাসপাতালে আনার পরে তাকে ডেঙ্গু জ্বরের পরীক্ষার জন্য বলা হয়েছিল। কিন্তু ছেলেটির অভিভাবকরা জ্বরের পরীক্ষা না করেই ফিরে যায়। এরপর রাত সাড়ে ১১ টার পরে আবারো ছেলেটিকে হাসপাতালে নিয়ে আসে। হাসপাতালে আনার আগে ছেলেটি রক্তবমি করেছিল। পরে তার অবস্থার অবনতি দেখে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে দ্রুত ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফার্ড করে। সেখানে ছেলেটি মারা গেছে বলে শুনেছি।


বিভাগ : শিক্ষাঙ্গন


নিউজ নারায়ণগঞ্জ এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আরো খবর
এই বিভাগের আরও