সড়কের মাঝে বৈদ্যুতিক খুঁটি না সরিয়ে ‘অভিযোগের’ অপেক্ষায় ডিপিডিসি

স্পেশাল করেসপনডেন্ট || নিউজ নারায়ণগঞ্জ ০৯:৩০ পিএম, ২৩ জুলাই ২০১৯ মঙ্গলবার

সড়কের মাঝে বৈদ্যুতিক খুঁটি না সরিয়ে ‘অভিযোগের’ অপেক্ষায় ডিপিডিসি

নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলার ফতুল্লার ইসদাইর বাজার সংলগ্ন ইসদাইর রাবেয়া হোসেন উচ্চ বিদ্যালয়ের সামনে থেকে ঢাকা-নারায়ণগঞ্জ লিংক রোডের সংযোগ সড়কের মাঝে বৈদ্যুতিক খুঁটির জন্য প্রতিনিয়ত চরম ভোগান্তিরর শিকার হচ্ছেন চলাচলকারী সাধারণ মানুষ।

সরেজমিনে দেখা যায় বিদ্যালয়ের সামনের অংশের রাস্তা ভাঙ্গা খানাখন্দে ভরা। যে কারণে রাস্তাটিতে চলাচল করা এমনিতেই দুষ্কর। মড়ার উপর খাড়ার ঘা হয়ে দাঁড়িয়েছে রাস্তার মাঝ বরাবর থাকা বৈদ্যুতিক খুঁটি। যে কারণে এই অংশ দিয়ে এক সময়ে মাত্র একটি গাড়ি চলাচল করতে পারে। একই সময় বিপরীত দিক থেকে গাড়ি আসলে একটিকে অপেক্ষা করে অপরটি চলতে হতে হয়। যে কারণে অল্প সময়েই এখানে যানজট তৈরী হয়। ব্যস্ততম সড়ক হওয়ায় এই অবস্থা সারাদিন চলতেই থাকে। এতে করে চরম ভোগান্তির শিকার হতে হচ্ছে এই রাস্তা দিয়ে চলাচল করা সাধারণ মানুষকে।

এলাকাবাসীর মাধ্যমে জানা যায়, বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী সহ প্রতিদিন অসংখ্য মানুষের চলাচল এই সড়ক দিয়ে। লিংক রোড থেকে সহজে ইসদাইর বাজারে আসা যাওয়া যায় বিধায় এই রাস্তার ব্যবহার অনেক বেশি। যে কারণে ছোট যানবাহন ও রিকশা প্রতিনিয়ত চলাচল করে। তবে রাস্তাটি একেবারে সংকীর্ণ। আর রাস্তাটির দুই পাশে উচু দেয়াল দিয়ে ঘেরা। যে কারণে রাস্তাটি মৃত্যু ফাঁদ হিসেবে কাজ করে। একই সময় দুটি গাড়ি বিপরীত দিক থেকে চলতে গেলে একেবারে দেয়াল ঘেঁষে চলতে হয়। আর এ কারণে ঝুঁকিতে থাকে পায়ে হেঁটে আসা শিক্ষার্থীদের জীবন। এর আগে দেয়ালের মাঝে চাপা পরে একজন শিক্ষার্থীর মর্মান্তিক মৃত্যু হয়েছিল এই রাস্তায়। এর পরে রাস্তাটি সম্প্রসারণ করা হয়।

বে রাস্তাটি সম্প্রসারণ করার ৬মাসের অধিক সময় পেরিয়ে গেলেও রাস্তার মাঝে থাকা বৈদ্যুতিক খুঁটি সরায়নি ডিপিডিসি কর্তৃপক্ষ। যে কারণে রাস্তাটি সম্প্রসারণ করা হলেও এর সুফল ভোগ করতে পারছে না এলাকাবাসী।

অটো রিকশা চালক শওকত মিয়া নিউজ নারায়ণগঞ্জকে বলেন, প্রতিদিন এই রাস্তা দিয়ে অসংখ্য বার চলাচল করতে হয়। কিন্তু এই জায়গায় আসলেই যানজট তৈরী হয়। কারণ রাস্তার মাঝে খুঁটির কারণে শুধু এক দিক দিয়ে গাড়ি চলাচল করে। যে কারণে এই জায়গায় যানজট লেগেই তাকে।

পথচারী রবিউল আলম নিউজ নারায়ণগঞ্জকে বলেন, ‘‘আগে রাস্তা আরো ছোট ছিল এখন রাস্তা বড় করা হইছে। এতে পায়ে হেঁটে চলাচল অনের সহজ হয়েছে। স্কুলের শিক্ষার্থীরা অনায়াসে চলাচল করতে পারে। কিন্তু রাস্তার মাঝে খুঁটির কারণে গাড়ি চলাচল আগের মতই আছে। যে কারণে গাড়ি দিয়ে চলাচলকারীদের জন্য আগের মতই ভোগান্তি রয়েই গেছে।’’

ডিপিডিসির নির্বাহী প্রকৌশলী মহিউদ্দিন নিউজ নারায়ণগঞ্জকে জানান, আমাদের কাছে কোনো অভিযোগ আসেনি। তাই বিষয়টি সম্পর্কে আমার জানা ছিল না। আমরা পরিদর্শনে গিয়ে দেখবো যে এখানে কি অবস্থা। তারপর এটা অপসারণের ব্যবস্থা গ্রহণ করব।


বিভাগ : ফিচার


নিউজ নারায়ণগঞ্জ এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আরো খবর
এই বিভাগের আরও