২৯ কার্তিক ১৪২৫, মঙ্গলবার ১৩ নভেম্বর ২০১৮ , ১:৪০ অপরাহ্ণ

UMo

ভুল চিকিৎসায় শিশু মৃত্যুর অভিযোগে ক্লিনিক ঘেরাও


|| নিউজ নারায়ণগঞ্জ

প্রকাশিত : ০৭:১১ পিএম, ২৩ অক্টোবর ২০১৮ মঙ্গলবার


ভুল চিকিৎসায় শিশু মৃত্যুর অভিযোগে ক্লিনিক ঘেরাও

নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁ উপজেলার মোগরাপাড়া চৌরাস্তা এলাকায় নতুন সেবা নামের ওই ক্লিনিকে ভুল চিকিৎসায় ছোয়া মনি নামের এক শিশু মৃত্যুর অভিযোগে মঙ্গলবার ২৩ অক্টোবর দুপুরে ওই ক্লিনিকটি ঘেরাও করেছিল মৃত শিশুর স্বজন ও এলাকাবাসী। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে সুষ্ঠু তদন্তের আশ্বাসে আন্দোলনকারীরা শান্ত হয়। এর আগে সোমবার ২৩ বিকেলে শিশুটি ডাক্তারের ভুল চিকিৎসার শিকার হয়ে মৃত্যুবরণ করে বলে পরিবারের অভিযোগ।

জানা যায়, সোনারগাঁ উপজেলার পিরোজপুর ইউনিয়নের ভবনাথপুর গ্রামের কামরুল ইসলাম ও সাবেক ইউপি সদস্য রুনা ইসলাম দম্পতির ছোট মেয়ে ছোয়া মনির জ্বর হলে ২২ অক্টোবর সোমবার বিকেলে মোগরাপাড়া চৌরাস্তা এলাকায় অবস্থিত নতুন সেবা নামের একটি ক্লিনিকে নিয়ে যায়। ওই সময়ে ডা. সাজ্জাদ হোসেন সুমন ওই শিশুর চিকিৎসা করান। ওই ডাক্তারের ভুল চিকিৎসায় ওই শিশুর মৃত্যু হয়েছে বলে পরিবারের লোকজন অভিযোগ করেন। এ অভিযোগ তুলে মঙ্গলবার দুপুরে নিহতের আত্মীয় স্বজন ও এলাকাবাসী একত্রিত হয়ে ওই ক্লিনিক ঘেরাও করে। খবর পেয়ে পুলিশ  ঘটনাস্থলে গিয়ে সুষ্ঠু তদন্তের আশ্বাসে শান্ত হয় এলাকাবাসী।

নিহত ওই শিশুর মা সাবেক ইউপি সদস্য রুনা ইসলাম জানান, তার মেয়ের জ্বর হলে তাকে নতুন সেবা ক্লিনিকে নিয়ে গেলে ডা. সাজ্জাদ হোসেন সুমন তার মেয়েকে দু’টি ইনজেকশন পুশ করেন। পরে তাকে বাড়িতে নিয়ে আসলে তার শরীর নীল রঙ্গের হয়ে যায়। পরে ডাক্তার সুমনকে ফোন দিলে মেয়ের মাথায় পানি ঢাললে ঠিক হয়ে যাবে বলেন। কিন্তু রাত ৮টার দিকে আমার মেয়ের শারিরিক অবস্থা আস্তে আস্তে অবনতি হতে থাকে। একাধিকবার ডাক্তার সুমনকে একাধিকবার ফোন দিলেও তিনি ফোন রিসিভ করেননি। রাত ১২টার দিকে পুণরায় হাসপাতালে নেয়ার পথে আমার মেয়ে মারা যায়।

এলাকাবাসীর অভিযোগ, সোনারগাঁয়ে ব্যাঙের ছাতার মতো গড়ে উঠছে ক্লিনিক। এসব ক্লিনিকে অনভিজ্ঞ ডাক্তার বসিয়ে লাখ লাখ টাকা সাধারণ মানুষের কাছ থেকে হাতিয়ে নিচ্ছে। তাছাড়া স্থানীয় প্রশাসনের নজরদারি না থাকার কারনে এ ঘটনা ঘটছে।

সোনারগাঁ মানবাধিকার কমিশনের সভানেত্রী জাহানারা আক্তার বলেন, স্থানীয় প্রশাসনের নজরদারীর অভাবে এভাবে ঝরে যাচ্ছে প্রাণ। তবে এসব ক্লিনিকে প্রশাসনের নজরদারি থাকা প্রয়োজন। ছোয়া মনির মৃত্যুর ঘটনাটি হত্যা ছাড়া কিছুই নয়। সুষ্ঠু তদন্তের মাধ্যমে রহস্য উদঘাটন করে অভিযুক্ত ডাক্তারকে আইনের আওতায় আনার জোর দাবি জানাচ্ছি।

অভিযুক্ত ডা. সাজ্জাদ হোসেন সুমন বলেন, হাসপাতালে আনার পর রোগীর জ্বর হয়ে খিচুনি হতে থাকে। রোগীর মাথায় ইনফেকশন থাকায় রোগীকে নেগেটিভ ভেবেই চিকিৎসা করিয়েছি। তবে আমার ১৮ বছরের অভিজ্ঞতায় আমার ভাগ্য খারাপ এ রোগী মারা যায়। তবে আমার চিকিৎসায় কোন গাফলতি ছিল না।

সোনারগাঁ থানার এসআই সাধন বসাক বলেন, বিষয়টি অভিজ্ঞ ডাক্তারদের সমন্বয়ে তদন্ত করে অভিযুক্ত ডাক্তার দোষী প্রমাণিত হলে তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

নতুন সেবা ক্লিনিকের পরিচালক মনির হোসেন বলেন, অভিযুক্ত ডাক্তারের বিষয়ে তদন্ত করে দোষী প্রমাণিত হলে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

সোনারগাঁ উপজেলা স্বাস্থ্য পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. তানভীর আহম্মেদ চৌধুরী বলেন, নিহত শিশুর পরিবারের কাছ থেকে অভিযোগ নিয়ে জেলা সিভিল সার্জনের কার্যালয়ে শিশু রোগ বিশেষজ্ঞ দিয়ে তদন্ত কমিটি গঠন করার সুপারিশ করেছি।

rabbhaban

নিউজ নারায়ণগঞ্জ এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আপনার মন্তব্য লিখুন:
Shirt Piece

স্বাস্থ্য -এর সর্বশেষ