রোগীদেরও চরম দুর্ভোগ

সিটি করেসপনডেন্ট || নিউজ নারায়ণগঞ্জ ০৮:৪০ পিএম, ২৮ অক্টোবর ২০১৮ রবিবার

রোগীদেরও চরম দুর্ভোগ

পরিবহন ধর্মঘটের কারণে সারা নারায়ণগঞ্জ থেমে থাকলেও থেমে নেই চিকিৎসাসেবা। ধর্মঘটের কারণে রাস্তায় পরিবহন বন্ধ থাকায় পায়ে হেঁটে হোক বা যেভাবেই হোক যথাসময়ে হাসপাতালে পৌছাতে হয়েছে চিকিৎসক ও নার্সদের। কারন তারা হাসপাতালে যথাসময়ে না পৌছলে চিকিৎসা সেবা থেকে বঞ্চিত হবে রোগীরা। তবে রোগীদের ভোগান্তিও কম ছিল না।

২৮ অক্টোবর রবিবার নগরের ভিক্টোরিয়া হাসপাতালে গিয়ে দেখা যায়, হাসপাতারের স্টাফরা যথারীতি নিজেদের কাজ করে চলেছেন। তবে প্রত্তেকের মুখেই বিরক্তির ভাব স্পষ্ট।

তাদের সাথে কথা বলে জানা যায়, তারা প্রত্যেকেই দূরদূরান্ত থেকে নানা ধরনের বাধার সম্মুখিন হয়ে কর্মস্থলে এসেছেন। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একজন সিনিয়র স্টাফ নার্স নিউজ নারায়ণগঞ্জকে জানান, ‘আমরা হাসপাতালে ঠিক মতো না এলে রোগীরা ভোগান্তিতে পরবে। তাই জালকুড়ি থেকে অনেক কষ্ট করে আসতে হয়েছে হাসপাতালে। মার্কেটে এসে দেখি গাড়িতে কালি ছোড়া হচ্ছে। তাই লাফাইয়া সবাইকে নামতে হইসে। তারপর এক প্রকার যুদ্ধ করে হাসপাতালে আসছি। নিজেই অসুস্থ্য হয়ে গেছি। রোগীদের দিকে খেয়াল করবো কি?’

ইয়াসমিন আক্তার নামের এক সিনিয়র স্টাফ নার্স বলেন, ‘অন্যদিন হাসপাতালে রোজ ৮ থেকে ১০ জন করে রোগী ভর্তি হয়। কিন্তু আজ মাত্র একজন আসছে। অন্যদিন রোগীদের পরিবারের জন্য এখানে বসা যায় না। আর আজ সবকিছু শান্ত। আমাদের এক নার্স তো মাতুয়াইল থেকে ভ্যানগাড়িতে করে সাইনবোর্ড আর সাইনবোর্ড থেকে অনেক কষ্ট করে এসেছেন। চিন্তা করেন আমরাই যদি এমন বিরক্তিতে ভোগা তাহলে রোগীদের সেবা করবো কিভাবে?’’

খোদেজা খাতুন বেবি মানের এক রোগী নিউজ নারায়ণগঞ্জকে জানান, ‘রিলিজ হয়ে যাওয়া সত্বেও সে বাড়ি যেতে পারিনি ধর্মঘটের কারণে। আমার পরিবারের লোকজন পায়ে হেঁটে হাসপাতালে পৌছলেও আমাকে বাড়িতে নিয়ে যাওয়ার কোনো যানবাহনের ব্যবস্থা করা যায়নি। ফলে তারা চিন্তায় আছেন যে ধর্মঘটের কারণে আমাকে আদৌ বাড়ি নিয়ে যাওয়া সম্ভব হবে কিনা।’

শিউলি বেগম নামের এক নারী শনিবার রাতে সন্তান প্রসব করেন। তার পরিবারের লোকজন নিউজ নারায়ণগঞ্জকে জানান, ‘ধর্মঘটের কারণে শিউলিকে এবং তার বাচ্চাকে দেখতে আসতে পারছেন না আমাদের আত্মীয়রা। এমনকি ওর স্বামীও যে কোনো প্রয়োজনে আসবে তার সাহসও পাচ্ছে না।’

ভিক্টোরিয়া হাসপাতালের পাশেই মন্ডলপাড়া ফায়ার স্টেশনের সামনে দেখা যায়, পরিবহন শ্রমিকরা ছোট বড় গাড়ি আটকে ড্রাইভারদের শাসাচ্ছেন।


বিভাগ : স্বাস্থ্য


নিউজ নারায়ণগঞ্জ এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আরো খবর
এই বিভাগের আরও