হাসপাতালে পুকুর চুরি হয়েছে, দুর্নীতির তদন্ত হবে : সেলিম ওসমান

স্টাফ করেসপনডেন্ট || নিউজ নারায়ণগঞ্জ ১০:৪৮ পিএম, ২ জুলাই ২০২০ বৃহস্পতিবার

হাসপাতালে পুকুর চুরি হয়েছে, দুর্নীতির তদন্ত হবে : সেলিম ওসমান

এমপি সেলিম ওসমান বলেছেন, ‘এ হাসপাতালের একজন টাইপইস্ট থেকে তত্ত্বাবধায়কের পিএস হয়ে গেলেন। তার জন্য কোন তত্ত্বাবধায়কই স্বাধীন ভাবে কাজ করতে পারতো না। আমি তদন্ত চেয়ে ছিলাম। কিন্তু তাকে বদলী করে দেয়া হয়েছে। নারায়ণগঞ্জের মানুষের চাহিদা হোক, কেন ওই চোরকে রাজশাহী পাঠিয়ে দেয়া হলো। কেন তার বিচার নারায়ণগঞ্জ শহরে হবে না? যার নাকি আমার জানা মতে, নারায়ণগঞ্জে ৩টি বাড়ি আছে, বিভিন্ন ক্লিনিকে শেয়ার রয়েছে। আমি যখন নিজে নিজে অডিট করেছি তখন দেখেছি ১০০ টাকার মাল ১৫০০ টাকা, রোগীদের খাবারের মধ্যে চুরি, আমি দুই বছরের গ্যারান্টি সহ ফ্যান দিয়েছি সেগুলো কোথায় গেল, একটি গভীর নলকূপ বসানোর পরও কেন আরেকটি গভীর নলকূপ বসানো হলো। কারণ ওইটার মধ্যে ঠিকাদারী আছে।’

বৃহস্পতিবার ২ জুলাই দুপুরে শহরের খানপুর এলাকায় হাসপাতালটিতে ১০ শয্যার আইসিইউ ইউনিটের উদ্বোধনকালে এসব কথা বলেন নারায়ণগঞ্জ-৫ (শহর ও বন্দর) আসনের সংসদ সদস্য একেএম সেলিম ওসমান। যিনি একই সঙ্গে ৩০০ শয্যা হাসপাতাল পরিচালনা কমিটির সভাপতি।

তিনি আরো বলেন, ‘আমরা নারায়ণগঞ্জবাসী সব সময় দুর্ভাগা। এর কারণ হচ্ছে কিছু অসৎ প্রকৃতির লোক আমাদের আশে পাশে চলে। আমি দেখায় দিবো কে কে চোর। খানপুরের হাসপাতাল থেকে খানপুরের মানুষ হাসপাতালের মালিক হয়েছেন, ৫ তলা বাড়ি করেছেন লিফট সহ। এসব করতে পারে না। তাহলে তাকে দুদকের মাধ্যমে প্রশ্ন করা হবে। যে ব্যবসায় খেলাপি, ব্যাংক খেলাপি তার এতো টাকা কোথায় থেকে আসে। ওই সিদ্দিক সাহেবেরও এতো টাকা কোথায় থেকে আসলো। নারায়ণগঞ্জ জেলা প্রশাসক সাহেব অডিট করতে হবে। এটা চুরি না এটা পুকুর চুরি হয়েছে। খানপুরে দেখে খানপুরের মানুষ এ হাসপাতালের মালিক না।

পরে তিনি নিজ থেকে সাংবাদিকদের বলেন, ‘চুরি যারা করেছে তাদের প্রত্যেকের নাম তদন্তের পর প্রকাশ করা হবে।’

এসময় উপস্থিত ছিলেন নারায়ণগঞ্জ জেলা প্রশাসক জসিম উদ্দিন, সিভিল সার্জন ডা. মুহাম্মদ ইমতিয়াজ, জেলা করোনা বিষয়ক ফোকাল পারসন ডা. জায়েদুল ইসলাম প্রমুখ।

সেলিম ওসমানের আহবানের বিষয়ে নারায়ণগঞ্জ জেলা প্রশাসক জসিম উদ্দিন বলেন, ‘এ বিষয়ে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর ব্যবস্থা গ্রহণ করবে। আর হাসপাতাল পরিচালনা কমিটি তদন্ত করে পদক্ষেপ গ্রহন করবেন। যদি আমাদের কাছে লিখিত কোন অভিযোগ দেয় তাহলে আমরাও সেটা ডিজি হেলথের কাছে পাঠিয়ে দিবো। কিংবা হাসপাতালের সুপারকে ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য বলবো। কারণ হাসপাতালটি আমাদের অধীনে না।’

প্রসঙ্গত ৩০০ শয্যা হাসপাতালের সুপারের ব্যক্তিগত পিএ সিদ্দিকুর রহমানকে গত ২৪ জুন স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের এক আদেশে বদলী করে রাজশাহী জেলা প্রশাসকের অধীনে ন্যস্ত করা হয়। সেখানে সময় সুযোগ বুঝে দায়িত্ব দেওয়া হবে।


বিভাগ : স্বাস্থ্য


নিউজ নারায়ণগঞ্জ এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আরো খবর
এই বিভাগের আরও