rabbhaban

পুলিশ সুপার অনেক ভালো মানুষ, আশা করি তিনি উদ্যোগ নিবেন


সিটি করেসপন্ডেন্ট | প্রকাশিত: ০৯:১৬ পিএম, ১৮ অক্টোবর ২০১৯, শুক্রবার
পুলিশ সুপার অনেক ভালো মানুষ, আশা করি তিনি উদ্যোগ নিবেন

নারায়ণগঞ্জ শহরের অন্যতম বৃহৎ ডিআইটি রেলকলোনী মসজিদের খতিব ও জেলা হেফাজতে ইসলামীর আমীর এবং জেলা ওলামা পরিষদের সভাপতি মাওলানা আব্দুল আওয়াল বলেছেন, আল্লাহ তায়ালা মদকে হারাম করেছেন। মদ খাওয়া হারাম। এগুলো ইমানদারের জন্য নিষিদ্ধ। আমাদের নারায়ণগঞ্জ বিভিন্ন সময় বিভিন্ন আন্দোলন করে আসছে। আন্দোলনের মাধ্যমে পতিতালয় উচ্ছেদ করেছে। এই নারায়ণগঞ্জের মাটিতে চাষাঢ়ায় বালুরমাঠে নূর মসজিদের পিছনের একটি বিল্ডিংয়ে মদের বার চালু করা হচ্ছে। এখানে বসে মদ খাবে, মাতলামী করবে এবং অসামাজিক কাজ করবে। যার মাধ্যমে আমাদের সমাজ নষ্ট হয়ে যাবে। আমাদের যুবক-যুবতীরা নষ্ট হয়ে যাবে। এটা সহ্য করা যায় না। কখনও অন্যায় সহ্য করিনি আর করবো না। যদি সোজা আঙ্গুলে ঘি না উঠে তাহলে আঙ্গুল বাঁকা করা হবে।

১৮ অক্টোবর শুক্রবার জুমআর নামাজের খুতবার বয়ানে তিনি এসব কথা বলেন।

মাওলানা আব্দুল আওয়াল বলেন, নারায়ণগঞ্জ জেলা পুলিশ সুপার ভাল মানুষ। তিনি আসার পর অনেকগুলো ক্রাইম বন্ধ হয়েছে। আশা করি তিনি এটাও বন্ধ করবেন। তার সাথে আমার কথা হয়েছে। আমরা ওলামায়ে কেরামগণকে নিয়ে বসবো। আমরা প্রথমত কোন কর্মসূচিতে যাচ্ছি না। পুলিশ সুপারের কাছে আমার অনুরোধ তিনি এটা বন্ধ করার ব্যবস্থা গ্রহণ করবেন। আর যদি বন্ধ না হয় তাহলে আমরা আন্দোলনে যাবো। নারায়ণগঞ্জের তৌহিদী জনতা যেভাবে পতিতালয় উচ্ছেদ করেছে ঠিক সেভাবে এই মদের আড্ডা উচ্ছেদ করবে। আমরা সবাই মিলে প্রতিহত করবোই।

তিনি আরও বলেন, আল্লাহ ব্যবসার অনেক পথ খুলে দিয়েছেন। যিনি এই ব্যবসা চালু করতে চাচ্ছেন তার কাছে আমি অনুরোধ করবো আপনি জাহান্নামের পথ থেকে ফিরে আসুন। আপনি যে টাকা খরচ করেছেন আল্লাহ অন্যদিক দিয়ে সেই টাকা উসুল করিয়ে দিবেন।

জানা গেছে, শহরের ভাষা সৈনিক সড়ক যেটা বালুরমাট হিসেবে পরিচিত সেখানে রয়েছে প্যারাইজ ক্যাবলস গ্রুপের মালিকানাধীন বহুতল ভবন। এ ভবনের ৯, ১০ ও ১১ তলায় ১৮ হাজার বর্গফুটের ফ্লোর ভাড়া নিয়েছেন রাজধানী সবুজবাগ এলাকার রাশেদ খান। আর প্যারাডাইজের পক্ষে ভাড়া দিয়েছেন মোবারক হোসেন। সেখানে রাশেদ খানের পদবী দেওয়া আছে ‘ব্লু পিয়ার রেস্টুরেন্ট’ এর ব্যবস্থাপনা পরিচালক। এ নামেই বসবে বার। ১৮ হাজার বর্গফুট আয়তনের তিনটি ফ্লোরের ভাড়া প্রতি মাসে ৫ লাখ টাকা। আর অগ্রীম জামানত হিসেবে নেওয়া হয়েছে ৪০ লাখ টাকা। চুক্তির মেয়াদ থাকবে ১০ বছর। এতে তিনজন সাক্ষীর মধ্যে একজন জামতলা এলাকার শাহাদাৎ হোসেন। গত ২০ মে থেকে ১০ বছর মেয়াদী ওই চুক্তির কার্যক্রম শুরু হয়।

আপনার মন্তব্য লিখুন:
newsnarayanganj-video
আজকের সবখবর