rabbhaban

দ্বিতীয় দিনেও পুলিশের উচ্ছেদ অভিযান, কিছু ব্যবসায়ীর ক্ষোভ


সিটি করেসপন্ডেন্ট | প্রকাশিত: ০৯:০৩ পিএম, ১৬ জুন ২০১৯, রবিবার
দ্বিতীয় দিনেও পুলিশের উচ্ছেদ অভিযান, কিছু ব্যবসায়ীর ক্ষোভ

নারায়ণগঞ্জে যুক্ত হওয়ার পরেই শহরের ফুটপাত দখল মুক্ত ও যানজট মুক্ত রাখার ঘোষণা দিয়েছিলেন পুলিশ সুপার হারুন অর রশিদ। ঘোষণা মত বিভিন্ন সময়ে অভিযান পরিচালনা করেন তিনি। এর ধারাবাহিকতায় আবারো উচ্ছেদ অভিযানের দ্বিতীয় দিনেও শহরে হকার ও রেল লাইনের দুই পাশে গড়ে ওঠা অবৈধ দোকানপাট উচ্ছেদ করা হয়েছে।

১৬ জুন রোববার সকাল থেকে বঙ্গবন্ধু সড়ক, সিরাজউদ্দৌলা সড়ক, ১নং রেল গেইট থেকে ২নং রেল গেইট পর্যন্ত উচ্ছেদ অভিযান চালিয়েছে সদর মডেল থানা পুলিশ। এছাড়া আবার যাতে হকাররা বসতে না পারে এ জন্য শহরে পুলিশের টহল অব্যাহত রাখা হয়েছে। আবারো অবৈধ দোকান বসা বন্ধ করতে ২নং রেল গেইট এলাকায় পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

তবে রেল লাইনের দুই পাশে বসা ব্যবসায়ীদের দাবি তাদের পর্যাপ্ত সময় দেওয়া হয়নি। যে কারণে উচ্ছেদ হওয়া শতাধিক ব্যবসায়ীর সবাই লোকশানের মুখে পড়বে বলে জানিয়েছেন তাঁরা।

নাম প্রকাশ্যে অনিচ্ছুক ব্যবসায়ী নিউজ নারায়ণগঞ্জেকে বলেন, ‘এইখানে যারা ব্যবসা করে সবাইতো গরিব মানুষ। অল্প পুঁজি নিয়া ব্যবসা করে। গতকাল ১৫ জুন) সাড়ে ১২টায় পুলিশ এসে ২টা পর্যন্ত সময় দিয়ে যায়। এত অল্প সময়ে মালামাল সরাইতে পারি নাই। ৩টার দিকে যাদের মালামাল সরাইতে পারে নাই তাদেরটা পুলিশ নিয়া গেছে।’

এসময় তিনি আরো বলেন, ‘‘এইখানে যারা ব্যবসা করে তাদের বেশির ভাগেরই ফলের দোকন আর সবজির দোকান। এগুলো বিক্রি না করতে পারলে নষ্ট হইয়া যায়। যেই মালামাল ছিল ওইগুলা বিক্রি করার জন্য যদি দুইটা দিন সময় দিতো তাইলে অন্তত আমরা লোকশানের হাত থেইকা বাঁচতে পারতাম। এখন অন্য জায়গায় বসার জায়গা খুঁজতে খুঁজতেই মালগুলা নষ্ট হইয়া যাইবো। সবারি পথে বসার মত অবস্থা।’’

ব্যবসায়ীদের আরেক জন জানান, এখানে ৪০ বছর ধইরা ব্যবসা করি। ট্রাফিক পুলিশ, রেল পুলিশ, থানার পুলিশ সবাই টাকা নেয়। পুলিশ যেহেতু টাকা নেয় তাই আমাদেরকে উচ্ছেদ করতে আসলে অবশ্যই সময় দেওয়া উচিৎ। কারণ এখানে যা আয় হয় সব আমরা খাই না তারাও খায়।

তবে ব্যবসায়ীদের এমন অভিযোগ অস্বীকার করেন জেলা পুলিশের বিশেষ শাখার পরিদর্শক সাজ্জাদ রোমন। নিউজ নারায়ণগঞ্জকে তিনি জানান, এই অভিযান হঠাৎ পরিচালনা করা হয়নি। এটি আমাদের ধারাবাহিক একটি অভিযান। সবাই জানে প্রতিনিয়ত হকার উচ্ছেদ অভিযান হচ্ছে। এটা তাদের মনগড়া একটা অভিযোগ।

আপনার মন্তব্য লিখুন:
newsnarayanganj-video
আজকের সবখবর