‘বাঘের থাবা ভালো হয়ে যান’ বক্তব্য গণমাধ্যমের উপর চাপ সৃষ্টি


স্টাফ করেসপনডেন্ট | প্রকাশিত: ১০:৩৪ পিএম, ১৩ জুলাই ২০২০, সোমবার
‘বাঘের থাবা ভালো হয়ে যান’ বক্তব্য গণমাধ্যমের উপর চাপ সৃষ্টি

নারায়ণগঞ্জ জেলা প্রশাসনের সর্বোচ্চ নীতি নির্ধারণী ফোরাম জেলা আইন-শৃঙ্খলা কমিটির মাসিক সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। ১২ জুলাই রোববার বেলা ১১ টায় নারায়ণগঞ্জ জেলা প্রশাসনের সম্মেলন কক্ষে এই সভা অনুষ্ঠিত হয়। তবে এদিন নারায়ণগঞ্জের সংসদ সদস্য উপস্থিত না হলেও জেলা প্রশাসনের অনেক কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন। আর এই সভায় উঠে এসেছে নারায়ণগঞ্জের আলোচিত ব্লু পেয়ার নামে মদের বার, হকার ইস্যু, গণমাধ্যমের উপর চাপ, গরুর হাট ও করোনা প্রসঙ্গ।

এসকল বিষয় প্রসঙ্গে জেলা আইনশৃঙ্খলা কমিটির অন্যতম সদস্য নারায়ণগঞ্জ প্রেসক্লাবের সভাপতি মাহবুবুর রহমান মাসুম বলেছেন, হকার দের ইস্যু করে নানা জনে নানা বক্তব্য দিচ্ছে। আমরা নারায়ণগঞ্জবাসী এবং গণমাধ্যম কর্মীরাও মনে করি ফুটপাতে হাটার অধিকার একমাত্র নাগরিকদের। গুটি কয়েক হকার দোকান দেয়ার জন্য মানবিকতা দেখিয়ে আমরা আমাদের মা বোনকে নিরাপত্তা দিতে পারবো না এটা তো হয় না। তারা তাদের ছেলে মেয়েদের নিয়ে স্কুলে যায় কলেজে যায়। ফুটপাত বন্ধ হয়ে গেলে সাধারণ মানুষ হাটতে পারে না। এ ব্যপারে জেলা প্রশাসক, পুলিশ সুপার, র‌্যাব তারা সকলেই একমত এখানে কোনো অবস্থাতেই ফুটপাতে হকারদের বসতে দিতে পারি না। আমি আক্ষেপের সাথে বলেছি কোনো কোনো জনপ্রতিনিধি তারা আমাদের ভোটে জনপ্রতিনিধি হকারদের ভোটে নির্বাচিত না। তারা আমাদের পক্ষে কথা বলবে না এটা তো হতে পারে না।

গণমাধ্যমের উপর চাপ উল্লেখ করে মাহবুবুর রহমান মাসুম বলেন, আমরা কিছুদিন ধরে দেখছি গণমাধ্যমের উপর চাপ চলছে। কেউ বলে মামলা করবে, কেউ বলে বাঘের চেয়ে অনেক বড় থাবা। একজন তোলারাম কলেজের ভিপি ছিলেন এখন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সাংবাদিকদের বলে ভালো হয়ে যান, নানারকম কথাবার্তা বলছে। আক্ষেপ করে তোলারাম কলেজ সরকারি করার সময় বাদলের দরকার বলেন। তোলারাম কলেজ সরকারী করার দাবী করে জিয়াউর রহমানের গাড়ি আটকিয়ে আমরা শুয়ে পড়েছিলাম। তখন আরজু জাহাঙ্গীর পরিষদ ছিল। আমাদের সকল ছাত্র সংগঠন ছিল। এটাকে বিকৃত করে নানারকম ফায়দা লুটছে তারা।

এখানে উল্লেখ্য গত ২ জুলাই নারায়ণগঞ্জ করোনা হাসপাতালে আইসিইউ উদ্বোধনের সময়ে সেলিম ওসমান বলেছিলেন, ‘প্রশ্ন থাকবে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর কাছে, এমপি সিট বদলায় দিতে পারে এটি কি করে সম্ভব হতে পারে। দুই দিনের যোগি না ভাতেরে অন্য বইলেন না। আমরা দেশটা স্বাধীন করেছি। আমরা মুক্তিযোদ্ধা। হাজার বার বলি সেলিম ওসমানের থাবা বাঘের চেয়েও ভয়ংকর। বাঘের চেয়েও ভয়ংকর সেলিম ওসমানের থাবা।’ একই দিন সেলিম ওসমান ডান্ডিবার্তার একটি সংবাদের ইস্যু টেনে মামলার হুশিয়ার দেন। পরে ১০ জুলাই বন্দরে এক অনুষ্ঠানে জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আবু হাসনাত মোঃ শহিদ বাদল বলেন, বঙ্গবন্ধু বলেছিলেন ছাত্রলীগের ইতিহাস বাঙালীর ইতিহাস আমি সেই ছাত্রলীগের সংগঠনের লোক। যারা পত্রিকার মাধ্যমে অপব্যাখ্যা করতে চান তাদেরকে বলতে চাই আপনারা কেন আসেন। বিবেকে বাধে না। আপনাদের কি হাত কাঁপে না। বিভিন্ন জেলা থেকে অনেকেই নারায়ণগঞ্জে এসেছিলেন। নারায়ণগঞ্জ সবার। এই মাটি পবিত্র মাটি। এইমাটিকে অপবিত্র হতে দিব না। যারা লেখনির মাধ্যমে লেখালেখি করেন তারা সাবধান হয়ে যান হুশিয়ার হয়ে যান। ছাগলের ৩টা বাচ্চা ২ টা খাইয়া লাফায় একটা না খাইয়া লাফায়। সুতরাং আপনারা লাফাইয়েন না। আপনারা কি আমার নেতা শামীম ওসমানের বিজয়ের কথা শুনেন নাই।

করোনা টেস্ট প্রসঙ্গে বলা হয়, ল্যাবএইড কেন করোনা টেস্ট করবে? ঢাকা ল্যাবএইডকে অনুমতি দেয়া হয়েছে। এটা লোকাল স্বাস্থবিভাগ জানবে না কেন। এটা অমার্জনীয় ব্যর্থতা। এখানে বলা হয়েছে প্রত্যেকটি ক্লিনিকে যাওয়া হবে, প্রত্যেকটা ডায়াগনস্টিক সেন্টারে যাওয়া হবে, যাদের লাইসেন্স নাই, যাদের কাগজপত্র মেয়াদ উত্তীর্ণ হয়ে গেছে আমরা রিজেন্ট হাসপাতালের মতোই ব্যবস্থা নেয়া হবে।

আপনার মন্তব্য লিখুন:
newsnarayanganj-video
আজকের সবখবর