শীতলক্ষ্যায় ২৬ ধলেশ্বরীতে ৬২ সেন্টিমিটার উপর দিয়ে পানি প্রবাহিত


স্টাফ করেসপনডেন্ট | প্রকাশিত: ১০:০৯ পিএম, ০৬ আগস্ট ২০২০, বৃহস্পতিবার
শীতলক্ষ্যায় ২৬ ধলেশ্বরীতে ৬২ সেন্টিমিটার উপর দিয়ে পানি প্রবাহিত

প্রাচ্যের ডান্ডিখ্যাত নারায়ণগঞ্জের উপর দিয়ে বয়ে যাওয়া শীতলক্ষ্যা, বুড়িগঙ্গা, ধলেশ্বরী ও বালু নদীর পানি বৃদ্ধি পাচ্ছে। ইতিমধ্যে এই চারটি নদীর পানি বিপদসীমার উপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। যার মধ্যে শীতলক্ষ্যার পানি ২৬ সেন্টিমিটার ও ধলেশ^রীর পানি ৬২ সেন্টিমিটার উপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে।

বন্যা পূর্বাভাস ও সতর্কীকরণ কেন্দ্রের ওয়েবসাইট থেকে থেকে জানা গেছে, শীতলক্ষ্যার বিপদসীমা ৫.৫০ মিটার। ৬ আগস্ট নদীর পানি বিপদসীমার ২৬ সেন্টিমিটার উপর দিয়ে প্রবাহিত হয়েছে। বৃহস্পতিবার ৬ আগষ্ট শীতলক্ষ্যার সুমিলপাড়া পয়েন্ট দিয়ে পানি ৫.৭৬ মিটার। বালু নদীর বিপদসীমা ৫.৭৫ মিটার। ডেমরা পয়েন্টে ৬ আগস্ট বালু নদীর পানি বিপদসীমার ২০ সেন্টিমিটার উপরে ৫.৯৫ মিটার দিয়ে প্রবাহিত হয়েছে। ধলেশ্বরীর জাগির পয়েন্টে বিপদসীমা ৮.২৫ মিটার। ৬ আগস্ট ধলেশ^রী নদীর পানি জাগির পয়েন্ট দিয়ে বিপদসীমার ৬২ সেন্টিমিটার উপরে অর্থাৎ ৮.৮৭ মিটার দিয়ে প্রবাহিত হয়েছে। আগের দিন ৫ আগষ্ট ধলেশ্বরী নদীর পানি ৮.৯২ মিটার দিয়ে প্রবাহিত হয়েছিল। অপরদিকে ৬ আগস্ট বুড়িগঙ্গা নদীর পানি ফতুল্লার হরিহরপাড়াস্থ পয়েন্টে ৫.৪০ মিটার দিয়ে প্রবাহিত হয়েছিল।

সরেজমিনে দেখা গেছে, বৃহস্পতিবার শীতলক্ষ্যায় নদীর পানি বৃদ্ধি পাওয়ায় নারায়ণগঞ্জের বন্দরের ঘাট সংলগ্ন বাজার ও ঘাট পানিতে ডুবতে শুরু করেছে। নদীর পাশে বন্দর ঘাটে নদীর পানিতে বাজারের অনেকাংশে পানি প্রবেশ করেছে। নবীগঞ্জ খেয়াঘাট এলাকাও ডুবে গেছে। এতে নদী পার হওয়া সাধারণ মানুষ এবং বাজারে বেচাঁকেনা করতে আসা ক্রেতা ও দোকানদাররা বিপাকে পড়েছেন।

আপনার মন্তব্য লিখুন:
newsnarayanganj-video
মহানগর এর সর্বশেষ খবর
আজকের সবখবর