rabbhaban

১৫ জুলাই শেষ উন্মাদনা : মেতে উঠে না গোল গোল বলে


সিটি করেসপনডেন্ট | প্রকাশিত: ০৮:০৬ পিএম, ১৪ জুলাই ২০১৮, শনিবার
১৫ জুলাই শেষ উন্মাদনা : মেতে উঠে না গোল গোল বলে ফাইল

রাশিয়া বিশ্বকাপ ফুটবল উন্মাদনা নিয়ে শুরু হলেও ফাইনালে তেমন কোন কিছুই দেখা যাচ্ছে না। নেই র‌্যালী, নেই বড় পর্দা সহ কোন বেনার ফেস্টুনও। এর মধ্যে নেমে ব্রাজিল আর্জেন্টিনার পতাকা নেওয়া যাওয়ায় মনেই হচ্ছে না নগরীতে বিশ্বকাপ ফুটবল নিয়ে শুরুতে এতো উন্মাদনা ছিল।

ইতোমধ্যে সকল জল্পনা কল্পনার অবসান ঘটিয়ে বিশ্বকাপ ফুটবলে ফাইনালে পৌছে গেছে একবারের বিশ্বকাপ জয়ী ফ্রান্স ও এ প্রথম বিশ্বকাপ ফাইনাল খেলা ক্রোরোশিয়া। দুই দলের মধ্যে ফ্রান্স সেমিফাইনালে বেলজিয়ামকে ১-০ ব্যবধানে হরিয়ে ফাইনালের পথ নিশ্চিত করে। অন্যদিকে ইংল্যান্ডকে ২-১ ব্যবধান হারায় ক্রোরোশিয়া।

গত ১৪ জুন থেকে শুরু হওয়া বিশ্বকাপ ফুটবল খেলা উপলক্ষে ব্রাজিল, আর্জেন্টিনা ও জার্মানী সহ বিভিন্ন ছোট বড় দলের সমর্থকদের মধ্যে পতাকা উড়ানোর প্রতিযোগিতা শুরু হয়। সেই প্রতিযোগায় পতাকার রঙে সাজানো হয় বাড়িও। বড় থেকে বড় পতাকা নিয়ে শহরের বঙ্গবন্ধু সড়কের র‌্যালীও বের হয়। তবে এদের মধ্যে ব্রাজিল ও আর্জেন্টিনার সমর্থকদের উন্মাদনাই ছিল চোখে পড়ার মতো।

বিশ্বকাপ খেলা দেখতে নগরীর বিভিন্ন এলাকায় রাস্তার মোড়ে মোড়ে বড় পর্দার আয়োজন করা হয়। যেখানের দলের সমর্থকেরা জরো হয়ে এক সঙ্গে মেতে উঠতেন গোল গোল বলে। তবে প্রথমে আর্জেন্টিনা ও পরে ব্রাজিল হেরে বিদায় নেওয়ার পর থেকেই উন্মাদনা শেষ হয়ে যায়। এখন আর রাস্তার মোড়ে গোল গোল বলে সেই উল্লাস দেখা যায় না। জয়ের পর বিজয় মিছিলও হয় না।

এ ধরনের উন্মাদনা না থাকলেও চায়ের আসর জমানোর মতো আলোচনা তৈরি হয়েছে প্রথম বিশ্বকাপের ফাইনাল খেলা দল ক্রোরোশিয়াকে নিয়ে। সঙ্গে রয়েছে ফ্রান্সের রক্ষণভাগের শক্ত দেওয়াল নিয়েও। এসব আলোচনার মধ্যে বিভিন্ন দলের ভালো খেলার প্রসঙ্গতো থাকেই। সেই সঙ্গে বেদনার ব্রাজিল ও আর্জেন্টিনার তর্কও থাকে। তবে আগের মতো নয়।

প্রিয় দলের বিদায় হলেও চারবছর পর আশা বিশ্বকাপ ফুটবলের ফাইনাল কেউ মিছ করতে চাইবেন না। তাই এখন সবার অপেক্ষা আগামী ১৫ জুলাই রাত ৯টায়। সেদিনের জন্যও কেউ কেউ ক্রোরোশিয়া আবার কেউ ফ্রান্সের পক্ষে সমর্থন হয়ে দাঁড়িয়েছে। প্রথম বিশ্বকাপ ফাইনাল খেলায় ক্রোরোশিয়ার দিকেই সমর্থকদের ভীর বেশি। আর সেইদিনই শেষ হবে ২০১৮ বিশ্বকাপের শেষ উন্মাদনা।

আপনার মন্তব্য লিখুন:
rabbhaban
আজকের সবখবর