rabbhaban

নারায়ণগঞ্জ শহরে বিদ্যুতের প্রি পেইড মিটার চলবে না


স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট | প্রকাশিত: ০৯:১৮ পিএম, ০৮ সেপ্টেম্বর ২০১৯, রবিবার
নারায়ণগঞ্জ শহরে বিদ্যুতের প্রি পেইড মিটার চলবে না

আবাসিক বিদ্যুৎ গ্রাহকদের গলার কাঁটা প্রি-পেইড মিটার স্থাপন বন্ধের দাবীতে আমরা নারায়ণগঞ্জবাসীর সংগঠনের উদ্যোগে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে। ৮ সেপ্টেম্বর রোববার বেলা ১১ টায় নারায়ণগঞ্জ প্রেস ক্লাবের সামনে এই মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়।

আমরা নারায়ণগঞ্জবাসী সংগঠনের সভাপতি নুরুদ্দিন আহমেদের সভাপতিত্বে মানববন্ধনে উপস্থিত ছিলেন সাধারণ সম্পাদক নাসির উদ্দিন মন্টু, জেলা কমিউনিস্ট পার্টির সভাপতি হাফিজুল ইসলাম, আমরা নারায়ণগঞ্জবাসীর সম্পাদক মন্ডলীর সদস্য আবু হাসান টিপু, সভাপতি মন্ডলীর সদস্য আনোয়ার হোসেন দেওয়ান, আব্দুল কুদ্দুস, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহমুদ হোসেন, মহিলা বিষয়ক সম্পাদক খোদেজা খানম নাসরিন ও সহ সাংগঠনিক সম্পাদক মাকিদ মুস্তাকিম শিপলু সহ বিভিন্ন পর্যায়ের নেতাকর্মীরা।

সভাপতি নুরুদ্দিন আহমেদ বলেন, বড় বড় মিল কারখানাগুলোর শত শত কোটি টাকার বিদ্যুৎ বিল বকেয়া রয়েছে। তাদের বিল পরিশোধ করা হয় না। কিছু অসাধু কর্মকর্তা মালিক পক্ষের সাথে যোগসাজেস করে সিস্টেম লসের নামে টাকা গায়েব করা হচ্ছে। আর এই সিস্টেম লসের বিল তুলার জন্যই সাধারণ জনগণের উপর প্রি-পেইড মিটারের খড়গ চাপিয়ে দেয়া হচ্ছে। আমরা অগ্রিম বিল দিয়ে বিদ্যুৎ চালাতে চাই নায়।

তিনি আরও বলেন, নারায়ণগঞ্জ শহরে প্রি-পেইড মিটার চলবে না। যদি প্রি-পেইড মিটার লাগানো হয় তাহলে কঠোর আন্দোলন গড়ে তোলা হবে। প্রি-পেইড মিটারের নামে গলার কাঁটা আমরা চাই না। এই প্রি-পেইড মিটার লাগানোর মাধ্যমে তারা সরকারের উন্নয়নকে ধূলিস্যাৎ করতে চায়।

নাসির উদ্দিন মন্টু বলেন, নারায়ণগঞ্জে এখন শোডাউনের রাজনীতি চালু হয়েছে। জনপ্রতিনিধিরা জনগণের পক্ষে কথা বলে না। নারায়ণগঞ্জবাসী যে গ্যাস পাই না, সে বিষয়ে কেউ কথা বলে না। তাদেরকে জনগণের কন্ঠে কথা বলতে হবে। প্রি-পেইড মিটারের নামে জনগণের উপর যন্ত্রণা চাপিয়ে দেয়া হচ্ছে। আমরা এটি বাতিল করার দাবী জানাই। হাজার হাজার কোটি টাকা খরচ করে নি¤œ মানের মিটার চাপিয়ে দিবেন না।

সিপিবি সভাপতি হাফিজুল ইসলাম বলেন, কোন পূর্ব ঘোষনার ছাড়াই প্রি-পেইড মিটার বসানোর প্রক্রিয়াকে সম্পূর্ণ বে-আইনী ও গণ বিরোধী উল্লেখ করে অবিলম্বে তাহা বন্ধের আহ্বান জানান, অন্যথায় সারা বাংলাদেশে এর বিরুদ্ধে প্রতিরোধ গড়ে তোলার প্রত্যয় ব্যক্ত করেন।

মানববন্ধন আরো উপস্থিত ছিলেন হাজী কুতুবউদ্দিন আহম্মেদ, বি. আলম মন্টু, হাজী মোঃ সেলিম হোসেন, মোস্তফা কামাল, মোঃ বাবুল (বাবু), আমির উদ্দিন, আবুল সরদার, মোঃ আলমগীর হোসেন, হাজী মোঃ হোসেন জুলু, মুক্তিযোদ্ধা মোঃ নান্নু মিয়া, আলাউদ্দিন আহম্মেদ, খাজা আহম্মেদ, নাজমুল হাসান নান্নু, খ.ম সুলতান, নুর হোসেন, মোঃ আল আমিন, মোঃ শুক্কুর, নজরুল ইসলাম রোমান, প্রনিক সভাপতি মোঃ সেলিম সিদ্দিক, বিপু, মোঃ শওকত আলী নোমান, রোকসানা বেগম, উমাইয়া বেগম সুমী প্রমুখ।

আপনার মন্তব্য লিখুন:
newsnarayanganj-video
আজকের সবখবর