rabbhaban

না.গঞ্জে ছিনতাইকারীর কবলে সিআইডি, আটক ৩


সিটি করেসপন্ডেন্ট | প্রকাশিত: ০৭:৫৫ পিএম, ১৬ নভেম্বর ২০১৮, শুক্রবার
না.গঞ্জে ছিনতাইকারীর কবলে সিআইডি, আটক ৩

নারায়ণগঞ্জে ছিনতাইকারী কবলে পরে টাকা ও মোবাইলসহ সর্বস্ব খুইয়েছেন পুলিশের অপরাধ তদন্ত বিভাগ সিআইডি’র কনস্টেবল ইমাম হাসান। বৃহস্পতিবার বিকেলে বন্দর উপজেলার ঢাকা চট্টগ্রাম মহাসড়কে মদনপুর এলাকায় এ ঘটনাটি ঘটে। ছিনতাইয়ের ঘটনার ১ ঘন্টার ব্যবধানে কাঁচপুর হাইওয়ে থানা পুলিশ ও বন্দর থানার টহলরত পুলিশ যৌথভাবে ছিনতাইকারীদের ব্যবহারকৃত একটি সাদা প্রাইভেটকারসহ ৩ ছিনতাইকারীকে আটক করতে সক্ষম হয়েছে। এ ব্যাপারে সিআইডি’র কনস্টেবল ইমাম হাসান বাদী হয়ে বন্দর থানায় দ্রুত বিচার আইনে মামলা দায়ের করেন। শুক্রবার দুপুরে গ্রেফতারকৃতদের ৭ দিনের রিমান্ড চেয়ে আদালতে পাঠানো হয়েছে।

গ্রেফতারকৃতরা ছিনতাইকারীরা হলো মাদারীপুর জেলার শিবচর থানার উতরাইল এলাকার দাদন মিয়ার ছেলে আমিনুল ইসলাম (৩০), চট্টগ্রাম সিতাকুন্ড বাড়ইয়া ঢলো এলাকার আব্দুল বাশার মিয়ার ছেলে ফরিদ (৩০) ও যশোর জেলার অভয়নগর থানার শংকর পাশা এলাকার ছানাউল্ল্যাহ মিয়ার ছেলে প্রাইভেটকার চালক ইউসুফ (৩৫)।

জানা গেছে, ঢাকা সিআইডি অফিসে কর্মরত কনস্টেবল ইমাম হাসান (ব্যাচ নং- ৯৫১) বৃহস্পতিবার দুপুর আড়াইটার দিকে কর্মস্থল ঢাকা সিআইডি অফিস থেকে প্রয়োজনীয় কাজের জন্য নারায়ণগঞ্জ সিআইডি অফিসে রওয়ানা হন।

বেলা সাড়ে ৩টায় কনস্টেবল ইমাম হাসান নারায়ণগঞ্জের সাইনবোর্ড এলাকায় এসে গাড়ীর জন্য রাস্তায় অপেক্ষা করতে থাকে। ওই সময় একটি সাদা রং এর প্রাইভেটকার (ঢাকা মেট্রো গ ২৫-৮৯৭৮) কনস্টেবল ইমাম হাসানকে নারায়ণগঞ্জে পৌছে দেয়ার কথা বলে গাড়ীতে উঠায়। প্রাইভেটকার চালক সাইন বোর্ড থেকে ডানে ইউটার্ন না করে কাঁচপুরের দিকে আসতে থাকে।

ওই সময় প্রাইভেটকারের থাকা আরো ২ ছিনতাইকারি মূহুর্তের মধ্যে কনস্টেবল ইমাম হাসানকে ব্যাগের কালো রং এর বেল্ট দিয়ে বেঁধে ফেলে। পরে তার কাছ থেকে নগদ ১০ হাজার টাকা, ১টি স্যামসাং মোবাইল সেট ও ব্যাগে থাকা আসুস কোম্পানীর ১টি ট্যাব ছিনিয়ে নিয়ে ফাঁকা রাস্তায় ফেলে দেয়। পরবর্তীতে স্থানীয় লোকজনের সহায়তায় কনস্টেবল ইমাম হাসান কাঁচপুর হাইওয়ে থানার ডিউটিরত সার্জেন্ট মাহাবুব আলম ও টহল পুলিশ এসআই সামাদকে বিষয়টি জানালে তার দ্রুত প্রাইভেটকারসহ উল্লেখিত ৩ ছিনতাইকারিকে আটক করে।

এ ব্যাপারে সিআইডি কন্সেটেবল বাদী হয়ে মামলা দায়ের হলে মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা বন্দর থানার উপ-পরিদর্শক মোহাম্মদ আলী আটককৃত ৩ ছিনতাইকারীকে ৭ দিনের রিমান্ডের আবেদন জানিয়ে শুক্রবার দুপুরে আদালতে প্রেরণ করেছে।

বন্দর থানার ওসি আজাহারুল ইসলাম সরকার জানান, গ্রেফতারকৃত ৩ ছিনতাইকারীকে ৭ দিনের রিমান্ড চেয়ে আদালতে পাঠানো হয়েছে। আদালত শুনানীর জন্য তারিখ নির্ধারণ করেছেন।

আপনার মন্তব্য লিখুন:
newsnarayanganj-video
আজকের সবখবর