২৯ অগ্রাহায়ণ ১৪২৪, বুধবার ১৩ ডিসেম্বর ২০১৭ , ৭:১৬ অপরাহ্ণ

পবিত্র ঈদুল ফিতরকে ঘিরে না.গঞ্জে কোটি টাকার মদ মজুদ


স্পেশাল করেসপনডেন্ট || নিউজ নারায়ণগঞ্জ

প্রকাশিত : ০৬:২৮ পিএম, ২৪ জুন ২০১৭ শনিবার | আপডেট: ০৭:৫১ পিএম, ২৪ জুন ২০১৭ শনিবার


ছবি প্রতিকী

ছবি প্রতিকী

পবিত্র ঈদুল ফিতর উপলক্ষ্যে নারায়ণগঞ্জে কয়েক কোটি টাকার মদ মজুদ করা হয়েছে বলে খবর পাওয়া গেছে। নারায়ণগঞ্জে মদ বিক্রির অনুমোদিত দু’টি দোকানের পাশাপাশি বিভিন্ন এলাকায় গড়ে উঠেছে মদ ও বিয়ার বিক্রির সিন্ডিকেট। এই চক্রের সদস্যরা মাঝেমধ্যে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর হাতে গ্রেফতার হলেও মূল হোতারা রয়ে যাচ্ছে ধরা ছোঁয়ার বাইরে। নারায়ণগঞ্জের একটি অভিজাত ক্লাবকে কেন্দ্র করেও গড়ে উঠেছে মদ ও বিয়ার বিক্রির সিন্ডিকেট। যেখানে হাত বাড়ালেই মিলে যেকোন ধরনের মদ ও বিয়ার। এছাড়া শহরের জামতলা ও বাবুরাইল, ফতুল্লার মেরী এন্ডারসন ও সিদ্ধিরগঞ্জের আদমজী এলাকায় রয়েছে শক্তিশালী সিন্ডিকেট। অভিযোগ রয়েছে পুলিশ ও মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরকে ম্যানেজই করে দীর্ঘদিন ধরে চলছে মদ ও বিয়ারের ব্যবসা।

মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তর নারায়ণগঞ্জ জেলা শাখার সূত্র মতে, নারায়ণগঞ্জ জেলায় মদ পান করার জন্য অনুমোদন রয়েছে সহ¯্রাধিক ব্যাক্তির। এর মধ্যে সুইপার রয়েছে প্রায় ৫০০। এছাড়া বাকীদের মধ্যে অর্ধেক  মুসলিম ও বাকী অর্ধেক অমুসলিম।

নারায়ণগঞ্জ শহরের টানবাজার এলাকায় ইয়ার্ণ মার্চেন্ট ক্লাবের পাশেই একটি গলির মধ্যে পুরাতন জরাজীর্ন ভবনের নিচতলায় অবস্থিত সেন কোম্পানী ও লিকো কোম্পানীর দোকানে মদ বিক্রির অনুমোদন রয়েছে। তবে অভিযোগ রয়েছে অনুমোদিত দুটি দোকান লাইসেন্সবিহীন ক্রেতাদের কাছে মদ বিক্রি করছে। ২০১৪ সালের ২৪ নভেম্বর নারায়ণগঞ্জের সেন অ্যান্ড কোম্পানির মালিক দর্পণকে ১৫ দিনের কারাদন্ড ও ১০ হাজার টাকা জরিমানা করেছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত। ওই সময়ে ওই দোকানে মজুদ ৫ হাজার লিটার মদ নষ্ট করে ফেলা হয়।

এদিকে শহরের প্রাণকেন্দ্রে অবস্থিত একটি অভিজাত ক্লাবেও চলছে মদ বিক্রির কারবার। আর ওই ক্লাবকে কেন্দ্র করে গড়ে উঠেছে মদ ও বিয়ার বিক্রির একাধিক সিন্ডিকেট।

নিউজ নারায়ণগঞ্জ এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আপনার মন্তব্য লিখুন:
Shirt Piece

মহানগর -এর সর্বশেষ