৮ আষাঢ় ১৪২৫, শুক্রবার ২২ জুন ২০১৮ , ৩:৪০ অপরাহ্ণ

সড়কে যানজট, ফুটপাতে উঠে যানবাহন


স্পেশাল করেসপনডেন্ট || নিউজ নারায়ণগঞ্জ

প্রকাশিত : ০৮:৪৫ পিএম, ১১ মার্চ ২০১৮ রবিবার | আপডেট: ০২:৪৫ পিএম, ১১ মার্চ ২০১৮ রবিবার


সড়কে যানজট, ফুটপাতে উঠে যানবাহন

নারায়ণগঞ্জে ফের তীব্র যানজটে চরম দুর্ভোগে পড়েছে নগরবাসী। আর এই যানজটের বিড়ম্বনায় বাধ্য হয়ে অনেকে মোটরসাইকেল নামক যানবাহনে করে ফুটপাত দিয়ে যাতায়াত করছে। এদিকে শহরের অন্যতম লিংক রোড থেকে যানজটের সৃষ্টি হচ্ছে বলে জানা গেছে।

লিংক রোডে লেগুনা, বেবিট্যাক্সি সহ অসংখ্য যানবাহনের স্ট্যান্ড গড়ে ওঠার কারণে যত্রতত্র এলোপাথারিভাবে যানবাহন রেখে যানজটের সৃষ্টি করছে। এছাড়া যানজটের মূখ্য কারণ হিসেবে দিনের বেলায় নিষিদ্ধ ঘোষিত ট্রাক প্রবেশের কারণে প্রায় সময়ই যানজট দৃশ্যমান হচ্ছে।

১১ মার্চ রোববার দুপুরে শহরের প্রাণ কেন্দ্র চাষাঢ়া সহ লিংক রোডের অধিকাংশ সড়ক জুড়ে যানজট দেখা দেয়। এতে করে শহরের মূল সড়কে ঘণ্টার পর ঘণ্টা যানজট দেখা দেয়। আর এই যানজটের কারণে ধৈর্যচ্যুত হয়ে মোটরসাইকেল আরোহীদের শহরের ফুটপাত দিয়ে যাতায়াত করতে দেখা যায়। তবে এ কারণে ফুটপাতের পথচারীদের কিছুটা অস্বস্তিতে চলাফেলা করতে দেখা গেছে।

সরেজমিনে দেখা গেছে, ‘সকাল ১১ টা থেকে শহরের বঙ্গন্ধু সড়কে যানজট। এই যানজট ধীরে ধীরে তীব্রতর হতে থাকে। আর এই যানজটের কারণ হিসেবে বেরিয়ে আসে লিংক রোডে গড়ে ওঠা অসংখ্য যানবাহনের স্ট্যান্ড। লেগুনা, বেবি, সিনএজি সহ অসংখ্য গণপরিবহনের স্ট্যান্ড সেখানে গড়ে উঠেছে। আর সেসব যানবাহনগুলো এলোপাথারিভাবে রেখে দেয়ার কারণে দিনের অধিকায়শ সময় যানজটের সৃষ্টি হয়। তবে মাঝে মাঝে এই যানজটের তীব্রতা ব্যাপক আকার ধারণ করে। এছাড়া দিনের বেলায় শহরের ভেতরে ট্রাক প্রবেশে নিষেধজ্ঞা থাকলেও ট্রাক প্রবেশের হার বেড়ে যাওয়ার কারণে আবারো যানজট দৃশ্যমান হচ্ছে। মূলত এই ট্রাকের কারণেই যানজট নামক দুর্ভোগ বার বার দৃশ্যমান হচ্ছে। এদিকে ট্রাফিক আইন না মেনে যানবাহন চলাচলের কারণেও যানজট দেখা দিচ্ছে। এভাবে সকাল থেকে দুপুর গড়িয়ে বিকেল পর্যন্ত যানজট দেখা যায়।

উল্লেখ্য গত ৮ মাস আগে নিতাইগঞ্জ ট্রাক স্ট্যান্ড সরিয়ে দিয়ে দিনের বেলা শহরে ট্রাক প্রবেশে নিষেধজ্ঞা জারি করা হয়। এর ফলে কয়েক মাস শহরের দিনের বেলা ট্রাক প্রবেশের তেমন কোন চিত্র দেখা যায়নি। যেকারণে নগরবাসী ট্রাকের কারণে সৃষ্ট যানজট থেকে অনেকটা স্বস্তিতে ছিল। এছাড়া শহরের সড়কগুলোতে এলোপাথারিভাবে যানবাহন রেখে দেয়ার ব্যাপারে কথা উঠলেও তা নিয়ে কোন ব্যবস্থা নিতে দেখা যায়নি।

তবে এভাবে বার বার যানজটের মত দুর্ভোগ দৃশ্যমান হওয়ায় প্রশাসনের অবস্থান প্রশ্নবিদ্ধ হচ্ছে বলে মনে করছেন নগরবাসী। এছাড়া প্রশাসনের দায়িত্বপালন নিয়ে কথা উঠে।

নগরবাসী জানায়, ‘সকাল থেকে যানজটের কারণে আমাদেরকে বিড়ম্বনার শিকার হতে হচ্ছে। আর যানজটের কারণে যাতায়াতে বেশ সমস্যায় পড়তে হচ্ছে। কারণ কোন যানবাহনে উঠেই যাতায়াত করতে পারছিনা। তাই বাধ্য হয়ে পায়ে হেঁটে যাতায়াত করতে হচ্ছে। কিন্তু পায়ে হেঁটে তো বেশিদূর যাওয়া যায়না। তাই সমস্যার সম্মুখীন হতে হচ্ছে। গাড়ির বিভিন্ন স্ট্যান্ড ও ট্রাকগুলো যদি নিয়ন্ত্রণ করা যেত তাহলে যানজটের মত দুর্ভোগ আর থাকত না।

এদিকে  ছিয়াম নামের এক ব্যবসায়ী জানায়, ‘দুপুর ১ টার সময় নারায়ণগঞ্জের ১ নং বাস কাউন্টার থেকে সাইনবোর্ডে যাওয়ার জন্য একটি বাসে উঠলে চাষাঢ়া যেতে দীর্ঘ আধা ঘন্টা বাসে বসে থাকতে হয়। এরপর বাধ্য হয়ে বাস থেকে নেমে অন্য যানবাহনে করে সাইবোর্ডে যাওযার জন্য রওনা দিচ্ছি। এদিকে আমার ব্যবসায়ের কাজের জন্য এক ব্যবসায়ী আমার সাথে গুরুত্বপূর্ণ কাজে দেখা করবে। কিন্তু যানজটে কারণে অনেক বিলম্ব হয়ে গেছে।

নিউজ নারায়ণগঞ্জ এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আপনার মন্তব্য লিখুন:
Shirt Piece

মহানগর -এর সর্বশেষ