১ অগ্রাহায়ণ ১৪২৫, বৃহস্পতিবার ১৫ নভেম্বর ২০১৮ , ৩:০৫ অপরাহ্ণ

UMo

চিত্তরঞ্জন ঘাটের বেহাল দশা


সিটি করেসপনডেন্ট || নিউজ নারায়ণগঞ্জ

প্রকাশিত : ০৮:২৯ পিএম, ২২ অক্টোবর ২০১৮ সোমবার


চিত্তরঞ্জন ঘাটের বেহাল দশা

নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশনের ১০নং ওয়ার্ডে চিত্তরঞ্জন ঘাটটির বেহাল দশা দিন দিন প্রকট আকার ধারণ করছে। নানা অনিয়মের মধ্য দিয়ে এই ঘাটের যাত্রীরা চরম দুর্ভোগ সহ্য করে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে নদী পারাপার হচ্ছে। শিঘ্রই এই সমস্যা সমাধানে যাত্রীরা মেয়র আইভী সহ সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।

২২ অক্টোবর সোমবার বন্দরের লক্ষণখোলা সোমবাড়িয়া বাজার ঘাটের চিত্তরঞ্জনটি ঘাটটির এই বেহাল দশার নানা চিত্র দেখা যায়। এতে যাত্রী সহ স্থানীয়দের অভিযোগের অন্ত ছিলনা।

সরেজমিনে দেখা গেছে, বালু মহলের মত উচু উচু স্তূপে বালু জট। আশেপাশে ২টি ট্রাক দুদিকে রেখে বালু উত্তোলন করা হচ্ছে। ফলে ঘাটে যাত্রীদের দাঁড়ানোর কোন স্থান নেই। ঘাটের বাম দিকে একটি অংশে নৌকা কোন রকমে স্থান পেয়েছে। তখন এলাকাবাসী ও শিক্ষার্থীদের ছিল উপচেপড়া ভীড়। স্থান স্বল্পতার ফলে ঘানে নৌকা ভিড়াতে চরম বিড়ম্বনার দৃশ্য দেখা গেছে। এসময় ছোট একটি ইঞ্জিন চালিত নৌকা আসা মাত্রই দীর্ঘক্ষণ অপেক্ষমান যাত্রীরা নৌকায় উঠতে হুড়োহুড়ি লেগে যায়। ফলে নৌকা ডুবে যাবার মত অবস্থা সৃষ্টি হয়। এর কিছুক্ষণ পর আরেকটি নৌকা আসলে একই দৃশ্যের পুনরাবৃত্তি ঘটে। এভাবে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে হাজার হাজার যাত্রী প্রতিদিন নদী পারাপার হচ্ছে।

নদী পারাপার হওয়া এক শিক্ষার্থী জানান, ঘাট আগের চেয়ে অনেক খারাপ অবস্থা হয়ে গেছে। জেটি ভাঙা, স্থান স্বল্পতা। এ অবস্থায় যাত্রী উঠতে নামতে নানা সমস্যা পড়তে হয়। নৌকা মাঝিরা আমাদের কাছে ৫টাকা ভাড়া আদায় করে, আবার ঘাটে ইজারাদার ১টাকা করে টোল আদায় করে। আর শুক্রবার হলে ঘাটে ৫টাকা করে টোল আদায় করে। অথচ ইজারাদারদের এসব মেরামত করার নেই কোন উদ্যোগ। তার মধ্যে ঘাটে আশেপাশে বালু উচু করে রেখে যাতায়াতে অসুবিধা সম্মুখিন হতে হয়। প্রতিবাদ করতে গেলে, শুনতে হয় হুমকি, হতে হয় লাঞ্ছিত। তাই ভয়ে কেউ প্রতিবাদ করেনা।

যাত্রীরা অভিযোগ করে বলে, ‘ঘাটের প্রধান সড়ক থেকে আশেপাশে চলাচলের স্থানে বালু স্তূপ করে রাখা হয়। একাংশে ঘাটের ইঞ্জিন চালিয়ে নৌকা দিয়ে পারাপার করছে এলাকাবাসী শিক্ষার্থীরা। পাশে একটি একটি অংশ দিয়ে ২ থেকে ৩টি ইঞ্জিন চালিত নৌকা চলাচল করছে। ফলে অতিরিক্ত যাত্রী পারাপারে প্রতিযোগিতা লেগে থাকে। অতিরিক্ত যাত্রী নিয়ে পারাপারে যেন সময় দুর্ঘটনা সৃষ্টি হয়ে পারে।

ঘাটের লোকজনদের অবহেলা ও একতরফা সিদ্ধান্তে যাত্রীদের ভোগান্তি চরম আকার ধারণ করেছে। যে কোন সময় বড় ধরণের দুর্ঘটনা ঘটতে পারে। অতিরিক্ত যাত্রী নিয়ে ইঞ্জিন চালিত ছোট ছোট নৌকা যাত্রীরা প্রতিনিয়ত আতঙ্কে থাকে। তাই নদী পারাপার হওয়া ভুক্তভোগীরা মেয়র আইভী সহ সংশ্লিষ্ট কর্র্তৃপক্ষের হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন স্থানীয়রা।

rabbhaban

নিউজ নারায়ণগঞ্জ এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আপনার মন্তব্য লিখুন:
Shirt Piece

মহানগর -এর সর্বশেষ