সিংহ বের হলো বিড়াল হয়ে (ভিডিও)

স্পেশাল করেসপনডেন্ট || নিউজ নারায়ণগঞ্জ ০২:৩১ পিএম, ১৮ নভেম্বর ২০১৯ সোমবার

সিংহ বের হলো বিড়াল হয়ে (ভিডিও)

হেলিকপ্টার হুজুর খ্যাত এনায়েত উল্লাহ আব্বাসী এক ওয়াজ মাহফিলে বলেন, ‘ভূত তাড়াইতে সরিষা, সরিষার মধ্যে ভূত। দেখছেননা যে নারায়ণগঞ্জে সিংহ হয়ে ঢুকলো বিড়াল হয়ে বের হল। যে লোকটি গাজীপুরের মানুষকে অশান্তির আগুনে জ্বালিয়েছে। সে নারায়ণগঞ্জে এসে এক বছরও থাকতে পারে নাই। কারণ আব্বাসী মঞ্জিল জৈনপুরি দরবারে সে হাত দিয়েছিল। আল্লাহর গজবে লাঞ্ছিত হয়ে চোখের পানি ফেলতে ফেলতে নারায়ণগঞ্জ থেকে পালিয়েছে। ভাব-সাব কি ছিল সন্ত্রাসী আর চাঁদাবাজ দমন করে দিবে। আর দেখা গেল সবচেয়ে বড় সন্ত্রাসী সে ছিল। চাঁদাবাজি করেছে মানুষকে কিডনাপ (অপহরণ) করেছে। পুলিশ ডিপার্টমেন্টকে কলংকিত করেছে সে। তার মত পুলিশ সুপার আমরা চাইনা। জনগণ বান্ধব পুলিশ সুপার নারায়ণগঞ্জে চাই আমারা। অতএব ভূত তাড়াতে সরিষা, সরিষার মধ্যেই ভূত ঢুকছে। কেন হচ্ছে এটা, শিক্ষা দিচ্ছি আমার বানর থেকে মানুষ, নাউযুবিল্লাহ। যখন আমরা শিক্ষা দিব আমাদের ছাত্রদেরকে আদম থেকে মানুষ তার সৃষ্টি জান্নাতে তখন মানুষ পরকালকে বিশ্বাস করবে, কবরকে বিশ্বাস করবে, হাসরকে বিশ্বাস করবে। পরকালে আল্লাহর কাছে জবাবদিহিতার সম্মুখিন হতে হবে মানুষ যখন এই ভৌত বিশ্বাস করবে মানুষ তখন অপরাধ করবেনা।

এখানে উল্লেখ্য, গত ৩ নভেম্বর স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের প্রজ্ঞাপনে নারায়ণগঞ্জ জেলা পুলিশ সুপার হারুন অর রশীদকে পুলিশ হেড কোয়াটারে বদলি করা হয়। গত ৭ নভেম্বর জেলা পুলিশ প্রশাসনের পক্ষ থেকে আনুষ্ঠানিকতা শেষে বিদায় জানানো হয়। তারপর থেকেই ভারপ্রাপ্ত এসপি হিসেবে দায়িত্ব পালন কারছেন এএসপি মনিরুল ইসলাম। একটি সিসি টিভি ফুটেজ প্রকাশের মধ্য দিয়ে এসপি হারুনের বিরুদ্ধে চাঁদাবাজির অভিযোগ উঠেছে।

তবে বিদায়ী অনুষ্ঠাতে সদ্য বদলী হওয়া নারায়ণগঞ্জ জেলা পুলিশ সুপার হারুন অর রশীদ বলেছেন, ‘আমি কোন ভুল করি নাই। সব তদন্তে প্রমাণ হবে। আমি নারায়ণগঞ্জের কল্যাণে কাজ করে গিয়েছি। তবে আমি যদি কাজ করতে গিয়ে নারায়ণগঞ্জে গন্যমান্য ব্যক্তি, সাংবাদিক সহ কারো মনে দুঃখ দিয়ে থাকি তাহলে ক্ষমা করবেন। মাদক, সন্ত্রাস, চাঁদাবাজ, ভূমিদস্যুর বিরুদ্ধে আমি যেমন কাজ করেছি আগামীতে যে নতুন পুলিশ সুপার আসবেন তিনিও এটা ধরে রাখবেন।

তবে এসপি হারুন অর রশিদের দায়িত্বপালন কালে এই হেলিকপ্টার হুজুর ও তার সহযোগিদের বিরুদ্ধে বিভিন্ন অভিযোগের ভিত্তিতে মামলা হয়েছে। জনসাধারণ তাদের বিরুদ্ধে একাধিকবার অভিযোগ করেছে। এমনকি এলাকার জনগণ গণহারে তাদের বিরুদ্ধে অভিযোগ করেছে।

সম্প্রতি রেলওয়ে কর্তৃপক্ষ সিদ্ধিরগঞ্জের এনায়েত উল্লাহ আব্বাসী ওরফে জৈনপুরী পীর ও তার সহোদরদের বিরুদ্ধে রেলওয়ের খাল ভরাট ও দখলের অভিযোগ সিদ্ধিরগঞ্জ থানায় মামলা দায়ের করার পরে ৪টি গ্রামের বাসিন্দারা সিদ্ধিরগঞ্জ থানা পুলিশের কাছে লিখিত অভিযোগ দেন। এরপর সিদ্ধিরগঞ্জ থানার ওসির নেতৃত্বে পুলিশের একটি টিম সরেজমিনে পরিদর্শন করে জৈনপুরীকে ভরাটকৃত জমি উন্মুক্ত করে ৪ গ্রামের জলাবদ্ধতা নিরসনের নির্দেশ দেন। তবে এক সপ্তাহেও ভরাটকৃত অংশ অবমুক্ত না হওয়ায় এখনো জলাবদ্ধতার কবলে ৪টি গ্রামের বাসিন্দারা।

২৭ জুলাই হেলিকপ্টার হুজুর হিসাবে খ্যাত নারায়ণগঞ্জের সিদ্ধিরগঞ্জের পাঠানটুলী এলাকার এনায়েত উল্লাহ আব্বাসী ওরফে জৈনপুরী পীরের বিরুদ্ধে জমি দখলের মামলা দায়ের করেছে বাংলাদেশ রেলওয়ে কর্তৃপক্ষ। ২৭ জুলাই দুপুরে বাংলাদেশ রেলওয়ের ঢাকা বিভাগীয় এস্টেট অফিসের কানুনগো মোঃ ইকবাল মাহমুদ বাদী হয়ে এ মামলাটি দায়ের করেন।

সিদ্ধিরগঞ্জের পাঠানটুলী এলাকায় জৈনপুরী পীর এনায়েত উল্লাহ আব্বাসীর ছোট ভাই নেয়ামত উল্লাহ আব্বাসীর নেতৃত্বে ২৫ এপ্রিল দিনগত রাত ১২টার দিকে একটি গার্মেন্টে হামলা চালিয়ে ব্যাপক ভাংচুর ও লুটপাটের অভিযোগ পাওয়া গেছে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গেলে নেয়ামত উল্লাহ আব্বাসীর নেতৃত্বে তার অনুগামীরা পুলিশের উপরেও হামলা চালায়। পরে সিদ্ধিরগঞ্জ থানার ওসির নেতৃত্বে অতিরিক্ত পুলিশ ঘটনাস্থলে এসে নেয়ামত উল্লাহ আব্বাসীর ৪ সহযোগীকেও গ্রেফতার করে। এ ঘটনায় দিনগত গভীর রাতে সিদ্ধিরগঞ্জ থানায় নেয়ামত উল্লাহ আব্বাসীসহ ১১ জনের নাম উল্লেখ করে অজ্ঞাত দেড়শ জনের বিরুদ্ধে এইচ এন এপারেলস লিমিটেড নামের গার্মেন্টের কর্মকর্তা মোঃ মহিউদ্দিন বাদি হয়ে একটি মামলা দায়ের করেছেন। যাতে গার্মেন্টে ভাংচুরের পাশাপাশি ১০ লাখ টাকা মূল্যের সামগ্রী লুটপাট ও হত্যার হুমকীর অভিযোগ আনা হয়েছে।

এদিকে নেয়ামত উল্লাহ আব্বাসীর বিরুদ্ধে এর আগেও অসংখ্য অভিযোগ ছিল। ঘটনার বিবরণে জানা যায়, কয়েক বছর আগে পাঠানটুলী পঞ্চায়েত কমিটির অন্যতম মুরুব্বী আব্দুর রব ভূঁইয়াকে মারধর করে তার প্রবাসী ছেলেরা দেশে আসলে হত্যা করবে বলে হুমকি প্রদান করে নেয়ামত উল্লাহ ও তার সাঙ্গপাঙ্গরা। জৈনপুরী এনায়েত উল্লাহ আব্বাসীর নেতৃত্বে নিরীহ লোকদের উপর অত্যাচার করে বলে অভিযোগে প্রকাশ। এ ঘটনায় আব্দুর রব ভূঁইয়া সিদ্ধিরগঞ্জ থানায় একটি সাধারণ ডায়েরী করে। যার নম্বর ১২১৪।

এলাকার কৃতিসন্তান জাতীয় ফুটবল দলের অধিনায়ক সুজনকেও প্রায় সময় মোবাইল ফোনে ভয়-ভীতি ও হুমকি প্রদর্শন করে ঐ ভন্ড সহোদররা। পরবর্তীতে জীবনের নিরাপত্তা চেয়ে খেলোয়ার সুজন একটি সাধারন ডায়েরী করে। যার নম্বর ১৪৫৬। শুধু তাই নয় একজন রাজমিস্ত্রী সাজ্জাদকে মারধর করে বিভিন্ন হুমকি প্রদর্শন করে এলাকা ছাড়ার ঘোষণা দেন ভন্ড জৈনপুরী নামধারী পীর ও সহোদররা। অবশেষে রাজমিস্ত্রী সাজ্জাদ তিনিও একটি জিডি করেন। যার নম্বর ১৪৩৫।

এছাড়া আরো অনেক মানুষের অভিযোগ থাকা স্বত্বেও সিদ্ধিরগঞ্জ থানা পুলিশ নেয়ামত উল্লাহ আব্বাসীর বিরুদ্ধে কোন ব্যবস্থাই নেয়নি। পুলিশ কোন ব্যবস্থা না নেওয়ায় নেয়ামত উল্লাহ আব্বাসী ও তার সহযোগীরা একের পর এক অপকর্ম করে চলেছিল। বেশ কিছুদিন পূর্বে সোলার বিদ্যুৎ মসজিদের লাগানোকে কেন্দ্র করে স্থানীয় আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি মোঃ আনোয়ার হোসেনের গায়ে হাত তুলে নেয়ামত ও তার অনুগামীরা। এ ব্যাপারে সিদ্ধিরগঞ্জ থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করা হলেও পুলিশ মামলা নিতে গড়িমসি করে।

নেয়ামত উল্লাহ আব্বাসী ঘরে পোস্টার আকারের একটি ছবি সাটানো ছিল যাতে নেয়ামত উল্লাহকে একটি একে ৪৭ রাইফেল ও একটি পিস্তলসহ বসে থাকতে দেখা যায়। এছাড়াও জৈনপুরী পীর এনায়েত উল্লাহ আবাসীর বিভিন্ন অনুষ্ঠানেও অস্ত্রধারী লোকজন বডিগার্ডের বেশ ধরে থাকতো। কিন্তু এসকল অস্ত্রের লাইসেন্স আদৌ রয়েছে কিনা সেটা নিয়ে সন্দেহ রয়েছে। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে সেসব ছবি ভাইরাল হয়েছে।

এদিকে চলতি বছরের ২২ ফেব্রুয়ারী দুপুরে নারায়ণগঞ্জ শহরের নবীগঞ্জ ফেরিঘাট এলাকায় একটি লঞ্চে নাশকতার উদ্দেশ্যে গোপন বৈঠক চলাকালে জৈনপুরী হুজুর এনায়েতউল্লাহ আব্বাসীর বড় ভাই সৈয়দ ইমদাদ উল্লাহ আব্বাসী, সিদ্ধিরগঞ্জ থানা জামায়াতের আমির কাউসার আহম্মেদসহ জামায়াত ও শিবিরের ১০ নেতা-কর্মীকে আটক করে জেলা গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি)। ২৩ ফেব্রুয়ারী নারায়ণগঞ্জ জেলা গোয়েন্দা (ডিবি) পুলিশের এস আই প্রকাশ চন্দ্র সরকার বাদী হয়ে মামলা দায়ের করেন।


বিভাগ : মহানগর


নিউজ নারায়ণগঞ্জ এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আরো খবর
এই বিভাগের আরও