নিজেদের রেশন দান করলেন নারায়ণগঞ্জ জেলা কারাগার কর্তৃপক্ষ

স্পেশাল করেসপনডেন্ট || নিউজ নারায়ণগঞ্জ ০৭:৩৮ পিএম, ৩১ মার্চ ২০২০ মঙ্গলবার

নিজেদের রেশন দান করলেন নারায়ণগঞ্জ জেলা কারাগার কর্তৃপক্ষ

করোনা ভাইরাসে উদ্বুত পরিস্থিতিতে কর্মহীন হয়ে পড়া মানুষদের সহায়তায় নারায়ণগঞ্জ জেলা কারাগারে কর্মরত সকল কর্মকর্তা ও কারারক্ষীরা দুস্থদের মধ্যে তাদের এক মাসের রেশন দান করেছেন।

৩১ মার্চ (মঙ্গলবার) সকাল ১১টায় নারায়ণগঞ্জ জেলা কারাগারের গেটে এ ত্রাণ বিতরণী কর্মসূচি অনুষ্ঠিত হয়। জেল সুপার সুভাষ কুমার ঘোষের তত্ত্বাবধায়নে এ কর্মসূচি পালিত হয়। জেল সুপারের স্ত্রী লিপি ঘোষ শুভ্রার উদ্যোগেই ত্রাণ বিতরণীর এ পরিকল্পনা গ্রহন করে নারায়ণগঞ্জ কারাগার। তিনি ব্যক্তিগতভাবে ১০ হাজার টাকা দান করেছেন এ পরিকল্পনার জন্য। সার্বিক সহায়তায় ছিলেন, জেলার শাহ্ রফিকুল ইসলাম, ডেপুটি জেলার তানিয়া জামান, সোহরাব হোসেন, আরিফুর রহমান ও সকল কারারক্ষিরা।

জানা যায়, ৫০০ হতদরিদ্র পরিবারকে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করেন তারা। যার মধ্যে ছিল ১০ কেজি চাল, ১ কেজি তেল, ১ কেজি ডাল, ২ কেজি আলু, ১ টা সাবান ও ১টি মাস্ক। এই মাস্ক কারাগারের কারাবন্দীরা তৈরী করেছেন। কারা অভ্যন্তরে কর্মরত কারাবন্দীরা বিগত দিনে যেকোন পোশাক তৈরী করলে পারিশ্রমিক পেত। কিন্তু এ সংকটময় পরিস্থিতিতে স্বেচ্ছাসেবামুলক কাজ হিসেবে মাস্ক তৈরীতে তারা কোন পারিশ্রমিক নেয়নি বলে জানা যায়।

সুভাষ কুমার ঘোষ বলেন, ‘মানুষ হিসেবে সমাজের প্রতি আমাদের দায়িত্ব রয়েছে। করোনার এই পরিস্থিতির কারণে নি¤œ আয়ের মানুষগুলো কাজ করতে পারছে না। তাদের উপর করোনার এই ব্যপক প্রভাব বিস্তার রোধের উদ্যেশ্যেই আমরা এ উদ্যোগ গ্রহন করেছি। কারা পরিবারের সবার সম্মতিক্রমে আমরা সিদ্ধান্ত নিয়েছি আমাদের রেশন দান করার।’

তিনি আরও জানান, ‘জেলখানার ভিতরে থাকা সকল বন্দিদের বিশেষ খেয়াল রাখা হচ্ছে। নতুন বন্দিদের আমরা কোয়ারেন্টাইনে রাখার ব্যবস্থা করেছি।’

লিপি ঘোষ শুভ্রা প্রতিবেদককে জানান, ‘জেলের বন্দিদের জন্য আমরা সব সময়ই কাজ করছি। তবে এ সংকটময় পরিস্থিতির কারণে যে মানুষগুলো কাজ করে খেতে পারছে না, মানবিকতার স্বার্থে তাদের সহায়তা করার তারনা অনুভব করেছি। আমি প্রথমে ক্ষুদ্রপরিসরে পরিকল্পনা করে তানিয়া জামানকে জানালে তিনি অন্যান্যদের সাথে কথা বলেন। তখন সকলেই সারা দেন এবং তারা সিদ্ধান্ত নেন যে, প্রত্যেকের এক মাসের বেতন দান করবেন।’

তিনি আরও জানান, কর্মকর্তাদের স্কুলে অধ্যয়নতরত সন্তানরাও নিজেদের পকেট খরচ থেকে ১০ টাকা থেকে ১ হাজার টাকা দান করেন। যা ভবিষ্যতে মানবিকতার সার্থে তাদের কাজ করতে উদ্বুদ্ধ করবে।

এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন, ডিপ্লোমা নার্স বদিউজ্জামান, নাজনীন আক্তারসহ কারাগারের অন্যান্য কর্মকর্তা ও কারারক্ষিরা।


বিভাগ : মহানগর


নিউজ নারায়ণগঞ্জ এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আরো খবর
এই বিভাগের আরও