শিশুদের নিয়েই অবাধে প্রবেশ মার্কেটে

স্টাফ করেসপনডেন্ট || নিউজ নারায়ণগঞ্জ ০৮:১৮ পিএম, ১১ মে ২০২০ সোমবার

শিশুদের নিয়েই অবাধে প্রবেশ মার্কেটে

প্রাণঘাতি করোনা ভাইরাসের হটস্পট খ্যাত নারায়ণগঞ্জ সহসাই হটস্পট থেকে বেরিয়ে আসতে পারছে না। প্রায় প্রতিদিনই বেড়ে চলছে আক্রান্তের সংখ্যা। ইতোমধ্যে ১৩’শ ছাড়িয়েছে আক্রান্তের সংখ্যা। সেই সাথে মৃত্যুর সংখ্যাও কমে আসছে না। প্রায় প্রতিদিনই দুই একজন করে মারা যাচ্ছেন।

এরই মধ্যে স্বাস্থ্যবিধি মেনে ও ক্রেতাদের সুরক্ষা নিশ্চিত করে মার্কেট খোলার অনুমতি দেয়া হয়েছে। যদিও দেশের অনেক জায়গায় মাকেট বন্ধ রয়েছে। কিন্তু নারায়ণগঞ্জের মার্কেট কমিটির নেতারা মার্কেট খোলার সিদ্ধান্তে বলবৎ রয়েছেন। তবে মার্কেট খোলার ব্যাপারে স্বাস্থ্যবিধি ও সুরক্ষা নিশ্চিত করা হচ্ছে না।

শিশুদের নিয়ে মার্কেটে প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা থাকলেও সেই নিষেধাজ্ঞা মানা হচ্ছে না। ক্রেতারা ছোট ছোট কোমলমতি শিশুদের নিয়েই অবাধে মার্কেটে প্রবেশ করছেন। ক্রেতাদের মধ্যে সচেতনতার কোনো বালাই দেখা যাচ্ছে না। সেই সাথে কর্তৃপক্ষেরও কোনো উদ্যোগ দেখা যাচ্ছে না।

জানা যায়, গত ২৬ মার্চ থেকে সারাদেশেই দোকানপাট ও বিপণিবিতান বন্ধ রাখার পাশাপাশি নারায়ণগঞ্জেও দোকানপাট ও বিপণিবিতানগুলো বন্ধ রয়েছে। এরই মধ্যে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ঈদের কেনাকাটার জন্য স্বাস্থ্যবিধি মেনে সীমিতভাবে দোকানপাট খোলার করা জানান। যার সূত্র ধরে গত ১০ মে থেকে বিপণিবিতান খুলে দেওয়ার আনুষ্ঠানিক নির্দেশনা দেওয়া হয়।

সেই নির্দেশনা অনুযায়ী গত ৭ মে নারায়ণগঞ্জ জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে জেলা প্রশাসনের সঙ্গে দোকান মালিক সমিতির নেতৃবৃন্দের বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। যেখানে ভিডিও কনফারেন্সে অংশ নেন জেলা প্রশাসক মো: জসিমউদ্দিন।

সভায় প্রতিটি মার্কেটের সামনে হাত ধোয়ার ব্যবস্থাসহ জীবানুনাশক স্প্রে ছিটানো এবং সামাজিক দূরত্ব নিশ্চিতকল্পে তারা পদক্ষেপ নিবেন। পাশাপাশি জেলা প্রশাসন থেকে তাদেরকে জনসচেতনতার যে লিফলেট দেয়া হবে সেগুলো প্রতিটি মার্কেটের সামনে মাইকে বাজানোর প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন।

ওই সভায় জেলা প্রশাসক মোঃ জসিম উদ্দিন বলেছিলেন, বাচ্চা নিয়ে মার্কেটে আসা যাবে না। এ বিষয়ে জেলা তথ্য অফিস, চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রি এবং মার্কেট মালিক সমিতিকে মাইকিংয়ের ব্যবস্থা করতে হবে। প্রাইভেট গাড়ি নিয়ে মার্কেটে আসা যাবে না। মার্কেটে হ্যান্ড স্যানিটাইজার, হাত ধোয়া এবং স্প্রে করার বিষয়ে মার্কেট কর্তৃপক্ষ ব্যবস্থা নেবেন। কিন্তু কার্যতপক্ষে সেই নির্দেশনা মানা হচ্ছে না।

১১ মে সোমবার দুপরে সরেজমিনে গিয়ে গিয়ে দেখা যায়, নারায়ণগঞ্জ শহরের প্রত্যেকটি মার্কেটেই রয়েছে ক্রেতাদের ভিড়। ক্রেতারা সামাজির দূরত্ব বজায় না রেখে একে অপরের সাথে ঘেঁসেই তারা তাদের পণ্য সামগ্রী ক্রয় করছেন। সেই সাথে ক্রেতাদের ছোট ছোট কোমলমতি শিশুদের নিয়েই অবাধে মার্কেটে প্রবেশ করেছেন। আর এ ব্যাপারে মার্কেট কর্তৃপক্ষও কোনো ব্যবস্থা নিচ্ছেন না।


বিভাগ : মহানগর


নিউজ নারায়ণগঞ্জ এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আরো খবর
এই বিভাগের আরও