টিম খোরশেদের ৯০ তম দাফন সম্পন্ন

সিটি করেসপন্ডেন্ট || নিউজ নারায়ণগঞ্জ ০৯:২৭ পিএম, ২৭ জুন ২০২০ শনিবার

টিম খোরশেদের ৯০ তম দাফন সম্পন্ন

নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশনের ১৩ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর ও নারায়ণগঞ্জ মহানগর যুবদলের সভাপতি মাকছুদুল আলম খন্দকার খোরশেদ এই করোনাকালিন সময়ে ক্রমাগতভাবে লাশের পর লাশ কাফন দাফন করে যাচ্ছেন। সেই সাথে রয়েছেন তার টিমের সদস্যরা। খোরশেদ ১৩ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর হিসেবে দায়িত্ব পালন করলেও বর্তমানে তিনি সারা নারায়ণগঞ্জ জুড়েই লাশ কাফন দাফনের দায়িত্ব পালন করে যাচ্ছেন।

যে সকল ওয়ার্ডের কাউন্সিলররা নিজেদের নানা সীমাবদ্ধতার কারণে সংশ্লিষ্ট ওয়ার্ডের লাশ কাফন দাফনের দায়িত্ব পালন করতে পারছেন না সেকল ওয়ার্ডগুলোতে সংশ্লিষ্ট ওয়ার্ডের কাউন্সিলরদের পক্ষে কাজ করে দিচ্ছেন মাকছুদুল আলম খন্দকার খোরশেদ ও তার টিম। ফলে এই করোনাকালিন সময়ে নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশনের অন্যান্য কাউন্সিলরদেরও ভরসার প্রতিক হয়ে দাঁড়িয়েছেন মাকছুদুল আলম খন্দকার খোরশেদ।

জানা যায়, নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশনের ১৩ নং কাউন্সিলর ও মহাগর যুবদলের সভাপতি মাকছুদুল আলম খন্দকার খোরশেদ নারায়ণগঞ্জে করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাব বৃদ্ধির পরেই প্রথমবারের মত হ্যান্ড স্যানিটাইজার তৈরি করে বিতরণ, মাস্ক বিতরণ, সরকারি ত্রাণ বিতরণ, ব্যক্তিগত ত্রাণ বিতরণ, টেলি মেডিসিন সেবা, সবজি বিতরণ, ৩০ পার্সেন্ট ভর্তূকি মূল্যে খাদ্য বিতরণ, ভর্তুকি মূল্যে ডিম বিতরণ, প্লাজমা ডোনেশন, অক্সিজেন সাপোর্ট সহ নানা কার্যক্রম করে যাচ্ছেন টিম খোরশেদ।

সেই সাথে খোরশেদ ঘোষণা দেন নারায়ণগঞ্জে করোনা উপসর্গ কিংবা এ রোগে কেউ আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুবরণ করলে দাফনের ব্যবস্থা করবেন। এরপর থেকেই তিনি একের পর এক লাশের কাফন দাফন সম্পন্ন করে চলছেন। নিজ ধর্মালম্বীদের পাশাপাশি অন্য ধর্মালম্বীদেরও লাশের সৎকার করে যাচ্ছেন মাকছুদুল আলম খন্দকার খোরশেদ। যা নিয়ে দেশের পাশাপাশি বর্হিবিশে^ও আলোচনায় চলে এসেছে। তাকে নানা উপাধিতে ভূষিত করে যাচ্ছেন। কেউ বলছেন, ‘মানবতার ফেরিওয়ালা’ কেউ বলছেন ‘হিরো অব করোনা’।

প্রথমদিকে তার দাফন কাফন নারায়ণগঞ্জের মধ্যে সীমাবদ্ধ থাকলেও এবার আর সেই কাজ নারায়ণগঞ্জে মধ্যে সীমাবদ্ধ নেই। খোরশেদকে নারায়ণগঞ্জের পাশাপাশি দেশের বিভিন্ন প্রান্তে ছুটে বেড়াতে হচ্ছে। সেই সাথে প্রতিনিয়তই তিনি সারা নারায়ণগঞ্জজুড়ে কাজ করে যাচ্ছেন। নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশনের অন্যান্য কাউন্সিলরদের পক্ষেও তিনি একের পর এক লাশ কাফন দাফন করে যাচ্ছেন।

তারই ধারবাহিকতায় ২৭ জুন শনিবার সকাল ৬টায় পাইকপাড়া নিবাসী এক সন্তানের জননী করোনা পজিটিভ হয়ে মারা যাওয়া চৈতী আক্তারের লাশ কাফন দাফন করেছেন।

এ প্রসঙ্গে মাকছুদুল আলম খন্দকার খোরশেদ বলেন, ২৭ জুন শনিবার ছিল আমাদের ৯০ তম দাফন। এদিন রাত ৩ টায় পাইকপাড়া নিবাসী এক সন্তানের জননী চৈতী আক্তার করোনা পজিটিভ হয়ে সাজেদা চৌধুরীর ইন্তেকাল করেন। পরিবারের ও ১৭ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর বাবু মামার আহবানে সকাল ৬ টায় টিম খোরশেদ সাজেদা হাসপাতাল থেকে মরদেহ গ্রহণ করে করে গোসল, কাফন, জানাযা ও পাইকপাড়া কবরাস্তানে দাফন সম্পূর্ণ করেছি।

তিনি আরও বলেন, ১৭ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর আঃ করিম বাবু আমাদের সার্বিক সহযোগিতা করেছেন। এদিন আমাদের টিমে ছিলেন ইউনিয়ন পরিষদ সদস্য রোজিনা আক্তার, হাফেজ শিব্বির আহমেদ, খন্দকার নাইমুল আলম, সুমন দেওয়ান, লিটন মিয়া রিয়াদ ও নাঈম।

এর আগে গত ২২ জুন সিটি কর্পোরেশনের ১২নং ওয়ার্ড কাউন্সিলার শওকত হাসেম শকু পুষ্টি চাহিদা পূরণের কাজে ব্যস্ত থাকায় তার ও পরিবারের আহবানে টিম খোরশেদ মিশনপাড়া নিবাসী শিউলী বেগমের কবর খনন, গোসল, কাফন, জানাযা ও দাফন সম্পূর্ণ করেছিলেন। মরহুমার গোসল করান টিম খোরশেদ নারী টিমের সমন্বয়কারী রোজিনা আক্তার মেম্বার, জানাযা পড়ান কেন্দ্রীয় কবরাস্থান মসজিদের ইমাম মাওলানা বদর শাহ। ওই টিমে ছিলেন হিরাশিকো, হাফেজ শিব্বির আহমেদ, রাব্বী, সুমন, লিটন, রিজন ও নাঈম।

এভাবে একের পর এক সারা নারায়ণগঞ্জ জুড়েই লাশ কাফন দাফন করে যাচ্ছেন। যার সূত্র দল মতের উর্ধ্বে থেইে নারায়য়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশনের সকল কাউন্সিলরদের ভরসার প্রতিক হয়ে উঠেছেন।


বিভাগ : মহানগর


নিউজ নারায়ণগঞ্জ এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আরো খবর
এই বিভাগের আরও