রিজেন্ট শাহেদে প্রতারিত নারায়ণগঞ্জের মিঠু (ভিডিও)

স্টাফ করেসপনডেন্ট || নিউজ নারায়ণগঞ্জ ১০:২৬ পিএম, ১৬ জুলাই ২০২০ বৃহস্পতিবার

রিজেন্ট শাহেদে প্রতারিত নারায়ণগঞ্জের মিঠু (ভিডিও)

বর্তমানে বহুল আলোচিত রিজেন্ট হাসপাতালের চেয়ারম্যান শাহেদ করিমের প্রতারণার অন্যতম সহযোগী প্রতিষ্ঠানের এমডি মাসুদ পারভেজ গ্রেপ্তারের পর মুখ খুলতে শুরু করেছেন বিভিন্ন এলাকার লোকজন। তার বিরুদ্ধে চেক জালিয়াতি, প্রতারণা ও দেশের বাহিরে থেকে বিভিন্ন যন্ত্রপাতি কিনে দেয়ার কথা বলে কৌশলে মোটা অঙ্কের অর্থ হাতিয়ে নেয়াসহ রয়েছে নানা অভিযোগ ভুক্তভোগীদের।

নারায়ণগঞ্জের সদর উপজেলার ফতুল্লার উত্তর হাজীগঞ্জ এলাকার মৃত ওশা গাজীর ছেলে ও মেসার্স জননী ইঞ্জিনিয়ারিং ওয়ার্কশপের স্বত্বাধিকারী মিঠু গাজী তার জীবনের সমস্ত আয় ১০ লাখ ৯০ হাজার টাকা পাওনার অভিযোগ তুলেছেন মাসুদ পারভেজের বিরুদ্ধে।

একই সাথে ১৬ জুলাই বৃহস্পতিবার দুপুরে নারায়ণগঞ্জ আদালতপাড়ায় পাওনা টাকা চেয়ে মানববন্ধন করেছেন মিঠু গাজী।

মিঠু গাজী বলেন, আমি ছোটখাটো একটি ওয়ার্কশপ মেসার্স জননী ইঞ্জিনিয়ারিং ওয়ার্কশপের মাধ্যমে ব্যবসা করেছিলাম। ওই ব্যবসার সূত্র ধরে তৎকালীন মিউচুয়াল ট্রাস্ট ব্যাংক লিমিটেডের অডিট অফিসার বর্তমান রিজেন্ট গ্রুপের চেয়ারম্যান শাহেদ করিমের সহযোগি এমডি মাসুদ পারভেজের সাথে পারিবারিক সম্পর্ক গড়ে উঠে। মাসুদ পারভেজ আমাকে বলে জার্মান থেকে ইঞ্জিনিয়ারিং ওয়ার্কশপের যন্ত্রপাতি কিনে দিবে। আর সেই যন্ত্রপাতি কিনা বাবদ আমার সমস্ত জীবনের উপার্জিত ১০ লাখ ৯০ হাজার টাকা দেই। কিন্তু টাকা নিয়ে সে আর যন্ত্রপাতি কিনে দেয়নি এবং টাকাও ফেরত দিতে গড়িমসি শুরু করে।

মিঠু গাজী আরও বলেন, একপর্যায়ে টাকা চাইতে গেলে বিভিন্নভাবে হুমকি ধমকি দিতে শুরু করে। টাকা বাবদ যে চেক দেয় সেটাও ডিজঅনার হয়ে যায়। পরবর্তীতে আমি আদালতের দারস্থ হই এবং মামলা দায়ের করি। এই মামলা দায়ের করাতেও তার হুমকি ধমকি আরও বেড়ে যায়। শাহেদের ক্ষমতার ভয় দেখায় আমাকে। মামলাকে হাইকোর্টে নেয়ার চেষ্টা করে। সেই সাথে আমাকে বলে ঢাকা যাওয়ার জন্য। কিন্তু আমি প্রাণভয়ে ঢাকা যায়নি। সবসময় আমি প্রাণভয়ে থাকি। আমার ছেলেটাকেও কলেজে ভর্তি করেনি ভয়ে।

তিনি আরও বলেন, এরই মধ্যে শুনলাম শাহেদের সহযোগি মাসুদ পারভেজকে গ্রেফতার করা হয়েছে। এজন্য প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও আইনশৃঙ্খলা বাহিনীকে ধন্যবাদ জানাই। প্রধানমন্ত্রী বলেছেন সকলের পাওনা পরিশোধ করা হবে। তাই এমতাবস্থায় আমার পাওনা টাকা ফেরত পেলে খুবই উপকৃত হতাম। আমার পরিবার পরিজন নিয়ে অসহায় অবস্থায় দিন যাপন করছি। অনেক সময় না খেয়েও দিন যাপন করতে হচ্ছে।

প্রসঙ্গত, মাসুদের গ্রেপ্তারের খবর গণমাধ্যমে আসার পর প্রতারণার নানা অভিযোগ আসতে শুরু করে। শাহেদের ঘনিষ্ঠ সহচরের খপ্পর থেকে রক্ষা পায়নি তার আত্মীয় স্বজনরাও। অর্থ জালিয়াতির অভিযোগে তিন বছর আগে মিউচুয়াল ট্রাস্ট ব্যাংক থেকে চাকরিচ্যুত হয় মাসুদ পারভেজ। পরবর্তীতে শাহেদের সঙ্গে সখ্যতায় রিজেন্ট গ্রুপে ঢোকেন। গত মঙ্গলবার সন্ধ্যায় কাপাসিয়ায় জাকির নামে তার এক বন্ধুর বাসা থেকে র‌্যাব অভিযান চালিয়ে গ্রেপ্তার করে তাকে। করোনা সাটির্ফিকেট প্রতারণা মামলার দুই নম্বর আসামি মাসুদ।

১৫ জুলাই বুধবার সকালে ‘সীমান্ত পেরিয়ে পালানোর সময়’ সাতক্ষীরা থেকে গ্রেপ্তার সাহেদকে বৃহস্পতিবার সকালে ঢাকার মুখ্য মহানগর হাকিম আদালত হাজির করা হয়। মঙ্গলবার সন্ধ্যায় গ্রেপ্তার হাসপাতালের এমডি মাসুদ পারভেজকেও একইসঙ্গে আদালতে তোলে গোয়েন্দা পুলিশ।

তাদের দুজনকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য দশ দিন করে রিমান্ডের আবেদন করা হয় গোয়েন্দা পুলিশের পক্ষ থেকে। শুনানি শেষে মহানগর হাকিম মোহাম্মদ জসীম দশ দিনের রিমান্ডই মঞ্জুর করেন।


বিভাগ : মহানগর


নিউজ নারায়ণগঞ্জ এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আরো খবর
এই বিভাগের আরও