‘রাক্ষুসে প্রিপেইড মিটার’ বন্ধের দাবিতে মানববন্ধন

সিটি করেসপন্ডেন্ট || নিউজ নারায়ণগঞ্জ ০৮:৪২ পিএম, ১১ সেপ্টেম্বর ২০১৯ বুধবার

‘রাক্ষুসে প্রিপেইড মিটার’ বন্ধের দাবিতে মানববন্ধন

নারায়ণগঞ্জে প্রিপেইড মিটার বন্ধের দাবীতে মানববন্ধন করেছে প্রিপেইড মিটার সংযোগ প্রতিরোধ কমিটির নেতৃবৃন্দ।

১১ সেপ্টেম্বর বুধবার সকাল ১০টায় প্রেসক্লাবের সামনে এ মানববন্ধন অনুষ্টিত হয়।

মানববন্ধনে প্রিপেইড মিটার সংযোগ প্রতিরোধ কমিটির যুগ্ম আহ্বায়ক মো. ইয়াসিন মিয়ার সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন প্রিপেইড মিটার সংযোগ প্রতিরোধ কমিটির যুগ্ম আহ্বায়ক আজহারুল ইসলাম, কুতুবপুর ইউনিয়ন নাগরিক কমিটির সদস্য সচিব বাসদ নেতা এস এম কাদির, প্রতিরোধ কমিটির নেতা বাহারানে সুলতান বাহার, ডি এম আহসান হাবীব (ডলার), মো. আলী হোসেন, নূরুল ইসলাম, রবিউল ইসলাম, দেলপাড়া উচ্চ বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির সদস্য নাসির উদ্দিন প্রধান প্রমুখ। মানববন্ধনে সংহতি জানিয়ে বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশের সমাজতান্ত্রিক দল-বাসদ সমন্বয়ক নিখিল দাস।

বক্তারা বলেন, রাক্ষসী প্রিপেইড মিটার বিদ্যুৎ গ্রাহকদের জন্য বিষফোঁড়া হয়ে দাঁড়িয়েছে। যেখানে ডিজিটাল মিটারে আগে একমাস বিদ্যুৎ ব্যবহার করে তারপরে বিল পরিশোধ করা হত এখন প্রিপেইড মিটারে অগ্রিম টাকা দিয়ে বিদ্যুৎ ক্রয় করা হচ্ছে। অথচ তার বিপরীতে গ্রাহকদের বাড়তি কোন সুযোগ সুবিধা দেয়া হচ্ছে না। বরঞ্চ উল্টো গ্রাহকের কাছ থেকে মিটার ভাড়া বাবদ প্রতি ৪০ টাকা, মাদার মিটার ২৪০ টাকা নেওয়া হচ্ছে। যা আগে ছিল না। প্রিপেইড মিটার কোন কারণে সমস্যা দেখা দিলে সার্ভিস চার্জ বাবদ ৬০০ টাকা দিতে হচ্ছে, সার্ভার সমস্যার কারণে রিচার্জ না করতে পারলে বিদ্যুৎ থেকে বঞ্চিত হচ্ছে গ্রাহক। ডিপিডিসি’র গণশুনানীতে প্রতিরোধ কমিটির নেতৃবৃন্দ প্রমাণ দেখিয়ে দেন যে আগের ডিজিটাল মিটার এর চাইতে বর্তমান প্রিপেইড মিটারে অতিরিক্ত বিল আসে।

প্রতিরোধ কমিটির পক্ষ থেকে মন্ত্রী, ডিপিডিসি কর্তৃপক্ষ, নারায়ণগঞ্জ জেলা প্রশাসকসহ সংশ্লিষ্ট দপ্তরে প্রি-পেইড মিটার না লাগানোর আবেদন করা হয়। ঢাকা জাতীয় প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলন করে বিভিন্ন সভা সমাবেশের মাধ্যমে জনগণের দাবি উত্থাপন করা হয়। তারপরও ডিপিডিসির কিছু অসাধু কর্মকর্তা রাতের আধারে স্থানীয় দালাল দিয়ে এবং পুলিশ পাহাড়ায় প্রিপেইড লাগানোর চেষ্টা করছে। নাগরিক কমিটির সদস্য সচিব এস এম কাদির বলেন ইতিমধ্যে যে সমস্ত বাসাবাড়ীতে প্রিপেইড মিটার সংযোগ দেওয়া হয়েছে তা অনতিবিলম্বে খুলে নিয়ে এবং নতুন করে আর একটি মিটারও যাতে না লাগানো হয় তার প্রতি আহ্বান জানান। প্রধানমন্ত্রীর কাছে আহ্বান জানান ডিপিডিসির গ্রাহকরা প্রিপেইড মিটার চায় না। তাই অনতিবিলম্বে বিদ্যুৎ মন্ত্রনালয়ের এই আত্মঘাতি সিদ্ধান্ত থেকে সরে আসার আহ্বান জানান। অন্যথায় এলাকার সর্বস্তরের জনগণকে নিয়ে বৃহত্তর আন্দোলন গড়ে তোলা হবে।



নিউজ নারায়ণগঞ্জ এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আরো খবর
এই বিভাগের আরও

আরো খবর