সৎ গণমাধ্যম ও নারায়ণগঞ্জবাসীর কাছে প্রতিকার চাই : অয়ন ওসমান

প্রেস বিজ্ঞপ্তি || নিউজ নারায়ণগঞ্জ ১০:৩৮ পিএম, ১৩ ফেব্রুয়ারি ২০১৮ মঙ্গলবার



সৎ গণমাধ্যম ও নারায়ণগঞ্জবাসীর কাছে প্রতিকার চাই : অয়ন ওসমান

আমি অত্যন্ত উদ্বেগের সাথে লক্ষ্য করছি যে, গত কয়েকদিন ধরে শহরের জামতলা এলাকায় এক যুবকের মৃত্যু নিয়ে আমাকে জড়িয়ে গণমাধ্যমে মিথ্যা ও মনগড়া সংবাদ প্রকাশিত হচ্ছে। বিশেষ করে একটি পত্রিকা আমার নাম ও আমার পরিবারের নাম ব্যবহার করে এসব মিথ্যা সংবাদ বেশ আগ্রহের সাথে প্রকাশ করে যাচ্ছে। এই পত্রিকাটি পড়ার মতো রুচিবোধ আমার না থাকলেও বিষয়টি নিয়ে অতিমাত্রায় মিথ্যাচারের কারণে আমি নারায়ণগঞ্জের সৎ ও বস্তুনিষ্ঠ সাংবাদিকতায় বিশ্বাসী শ্রদ্ধেয় গণমাধ্যমকর্মীদের কাছে এবং আপামর নারায়ণগঞ্জবাসীর কাছে এর সুষ্ঠু প্রতিকার দাবী করছি।

প্রকাশিত সংবাদগুলোতে জানতে পারলাম মৃত ওই যুবকের নাম রাজু এবং সে একজন চিহ্নিত মাদক ব্যবসায়ী। এই ঘটনার মাত্র দুই সপ্তাহ আগে সে মাদক মামলায় জেল খেটে জামিনে মুক্ত হয়েছিল। বারবার এসব মিথ্যা সংবাদে বলার চেষ্টা করা হচ্ছে আমি ওই মৃত যুবকের মারধরের সময় উপস্থিত ছিলাম এবং যারা মারধর করেছে তারা আমার লোক।

প্রকৃত পক্ষে মারধরকারী যাদের বলা হচ্ছে তারা আমার সহযোগী হওয়ার প্রশ্নই উঠে না। স্থানীয়ভাবে শুনতে পেরেছি যে, এলাকবাসী ঐ চিহ্নিত মাদক ব্যবসায়ীকে হাতে নাতে ধরেছিল। মূলত এই পত্রিকাটি আমার বাবা মাননীয় এমপি একেএম শামীম ওসমান ও আমাদের ঐতিহ্যবাহী পরিবারকে বারবার মিথ্যাচারের মাধ্যমে ঘায়েল করতে না পেরে এবার আমাকে নিয়ে এই অপসাংবাদিকতায় লিপ্ত হয়েছে। এই ঘটনা নিয়ে “টর্চার সেল, যুবরাজ” সহ নানা আপত্তিকর শব্দ ও তথ্য ব্যবহার করেছে।

অথচ আমার কোন বক্তব্য নেয়া হয়নি,যা সাংবাদিকতার নীতিমালা বহির্ভূত এবং দন্ডনীয়। এমন অপসাংবাদিকতা পুরো সাংবাদিক মহলের জন্য কলঙ্ক তিলক। যেহেতু পূর্বেও এমন মিথ্যা সংবাদের কারণে এই পত্রিকাটির বিরুদ্ধে আমাদের পরিবারের পক্ষ থেকে মামলার মাধ্যমে ন্যায় বিচার চাওয়া হয়েছে, তাই তারা আমাকে নিয়ে এসব নোংরামীতে মেতে উঠেছে।

শুধু আমাদের পরিবার নয়, এই পত্রিকাটি একটি মহলের পৃষ্ঠপোষকতায় বারবার নারায়ণগঞ্জ কে অশান্ত করার চেষ্টা করেই যাচ্ছে। একের পর এক সম্মানিত রাজনৈতিক ব্যক্তি, জনপ্রতিনিধি, ব্যবসায়ী সহ সুধী মহলের অনেকেরই চরিত্র হনন করে যাচ্ছে। সাধারণ মানুষের মুখে শুনি, ওই পত্রিকা এখন নারায়ণগঞ্জের দুঃশ্চিন্তায় রূপ নিয়েছে। কারণ শান্ত নারায়নগঞ্জ কে অশান্ত করার অপচিন্তায় মগ্ন থাকে এ পত্রিকাটি। তারা যদি মনে করে এসব করে তারা লাভবান হবেন তবে তারা ভুলের স্বর্গে বসবাস করছেন। নারায়ণগঞ্জবাসীর শান্তি বিনষ্ট করে তারা কখনোই লাভবাবন হতে পারবে না।

আমি আপামর নারায়ণগঞ্জবাসী ও নারায়ণগঞ্জের সত্যনিষ্ঠ সাংবাদিকতায় বিশ্বাসী গণমাধ্যমের কাছে আপনাদের সন্তান হিসেবে এর বিচার দাবী করছি। পাশাপাশি আমি দৈনিক যুগের চিন্তা পত্রিকাতেও আমার প্রতিবাদ লিপি প্রেরণ করেছি। তারা সেটি প্রকাশ না করলে, একজন আইনের ছাত্র হিসেবে আমাকে আইনের আশ্রয়ই নিতে হবে। তাদের অবশই এই ঘটনায় আমার সংশ্লিষ্টতা প্রমাণ করতে হবে। কারণ, কেউই আইনের উর্ধ্বে নয় এবং তাদের সেটি বোঝা উচিত।

নিবেদক

ইমতিনান ওসমান অয়ন



নিউজ নারায়ণগঞ্জ এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আরো খবর
এই বিভাগের আরও