৮ আশ্বিন ১৪২৫, রবিবার ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮ , ৯:০৩ অপরাহ্ণ

আড়াইহাজারে কুকুরের কামড়ে আহত ১০, বন্দরে উপদ্রব বৃদ্ধি


সিটি করেসপনডেন্ট || নিউজ নারায়ণগঞ্জ

প্রকাশিত : ০৭:৩৪ পিএম, ১৯ ফেব্রুয়ারি ২০১৮ সোমবার


আড়াইহাজারে কুকুরের কামড়ে আহত ১০, বন্দরে উপদ্রব বৃদ্ধি

আড়াইহাজারের কুকুরের কামড়ে নারী ও শিশুসহ অন্তত ১০জন আহত হয়েছেন। সোমবার উপজেলার জালাকান্দি ও রামচন্দ্রদী গ্রামে এই ঘটনা ঘটে।

আহতরা হলেন মারফত আলী (৭০), সোহেব (৮), রিয়াদ (৪), জিহাদ (৭) মঞ্জু (৩০), মোশারফ (৯), মারুফ (৯), নাজমুল (১০), জাকারিয়া (১২) ও  সুমন (৫)। এদের উপজেলা স্বাস্থ্য কেন্দ্রে চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে।

আহত মারফত আলীর ছেলে জালাল জানান, স্থানীয় রামচন্দ্রী কোণাপাড়া এলাকার মালয়েশিয়া প্রবাসী ছালামের ছেলে মোতালিব নামে এক ব্যাক্তি মারা যায়। তার মরদেহ সোমবার দুপুরে জানাযা শেষে দাফন করতে এলাকার লোকজন স্থানীয় কবরস্থানে নিয়ে যান। ফেরার পথে বেশ কয়েকটি পাগলা কুকুর আহতদের ওপর ঝাঁপিয়ে পড়ে। এতে প্রায় ১০জন লোক আহত হয়েছেন।

আড়াইহাজার উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাঃ হাবিব ইসমাইল ভূইয়া, বলেন, আহত সবাইকে চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে।

বন্দর উপজেলায় বেওয়ারিশ কুকুরের উপদ্রব বৃদ্ধি
বন্দর উপজেলার ৫টি ইউনিয়নসহ নাসিক বন্দরে ৯টি ওয়ার্ডে বেওয়ারিশ কুকুরের উপদ্রব আশংকাজনক হারে বৃদ্ধি পেয়েছে। এমন অভিযোগ করেছে স্থানীয় এলাকাবাসী।

বিভিন্ন সূত্রে জানা গেছে, বন্দর উপজেলার ফরাজিকান্দা, আলীনগর, ঘারমোড়া, চুনাভূরা, কলাগাছিয়া, হাজীপুর, মদনগঞ্জ, বেপারীপাড়া, মাহামুদনগর, দড়িসোনাকান্দা, সোনাকান্দা, এনায়েতনগর, রুপালী, ছালেহনগর, বন্দর বাজার এলাকাসহ বিভিন্ন এলাকায় কুকুরের উৎপাতে অতিষ্ট হয়ে উঠেছে উল্লেখিত এলাকার জনগন।

তারা ক্ষোভ প্রকাশ করে জানিয়েছে, গত কয়েক বছর ধরে বন্দর উপজেলা প্রশাসন ও নাসিক পক্ষ থেকে কুকুর নিধন অভিযান বন্ধ রাখে। এ কারনে উপজেলার বিভিন্ন ইউনিয়নের পাড়া মহল্লায় ও সিটি করর্পোরেশনের বিভিন্ন ওয়ার্ডে বেওয়ারিশ কুকুরের সংখ্যা ব্যাপক হারে বেড়ে যায় । সে সাথে উপজেলার  প্রতিটি পাড়া মহল্লায় ২০ থেকে ৩০টি কুকুর এক সাথে চলাচল করতে দেখা যাচ্ছে বলে জানিয়েছে। প্রতিনিয়ত কুকুর আতংকে থাকে স্থানীয় এলাকাবাসী। অনেক এলাকায় একাধিক বয়স্ক কুকুরের গায়ে পচন ধরতে দেখা যাচ্ছে। এসব দেখেও ব্যবস্থা নিচ্ছে না সংশ্লিষ্ট প্রশাসন। সব মিলিয়ে একটি অসস্থিকর পরিবেশের মধ্য দিয়ে বন্দরবাসীকে তাদের স্ব স্ব এলাকায় বাধ্য হয়ে বসবাস করতে হচ্ছে।

নাসিক ১৯নং ওয়ার্ড কাউন্সিলার ফয়সাল মোহাম্মদ সাগর জানিয়েছেন, হাইকোর্টে রিট থাকার কারনে নাসিকের পক্ষ থেকে কুকুর নিধন করা সম্ভব হচ্ছে না। এ কারনে আমি কোন ব্যবস্থা নিতে পারছি না।

নিউজ নারায়ণগঞ্জ এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আপনার মন্তব্য লিখুন:
Shirt Piece

শহরের বাইরে -এর সর্বশেষ