বন্দরে ভোট যুদ্ধের গণবিজ্ঞপ্তি জারি

বন্দর করেসপনডেন্ট || নিউজ নারায়ণগঞ্জ ০৯:৩৪ পিএম, ১২ মে ২০১৯ রবিবার

বন্দরে ভোট যুদ্ধের গণবিজ্ঞপ্তি জারি

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের পরে একে একে উপজেলা নির্বাচনের সবগুলো ধাপ পেরিয়ে সর্বশেষ পঞ্চম ধাপের নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করা হয়েছে। এই ধাপে সারা দেশের ১৬টি উপজেলা সহ নারায়ণগঞ্জের বন্দর উপজেলা নির্বাচন আগামী ১৮ জুন অনুষ্ঠিত হবে। সেই লক্ষ্যে ইতিমধ্যে গণবিজ্ঞপ্তি জারি করেছে রিটার্নিং অফিসার। বন্দর উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে রিটার্নিং অফিসারের দায়িত্ব পালন করবেন অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মুহাম্মদ মাসুম বিল্লাহ।

জানা গেছে, উপজেলা নির্বাচনের পঞ্চম ধাপে বন্দর উপজেলায় ভোটগ্রহণ করা হবে আগামী ১৮ জুন। রিটার্নিং অফিসার ও অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মাসুম বিল্লাহ রোববার গণবিজ্ঞপ্তি জারি করেন। গণবিজ্ঞপ্তিতে ঘোষিত তফসিল অনুযায়ী, বন্দর উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান, ভাইস চেয়ারম্যান ও নারীদের জন্য সংরক্ষিত ভাইস চেয়ারম্যান পদে মনোনয়নপত্র জমা দেওয়ার শেষ দিন ২১ মে। মনোনয়নপত্র বাছাই হবে ২৩ মে এবং প্রত্যাহারের শেষ দিন ৩০ মে।

এদিকে বন্দর উপজেলা নির্বাচনের ভোট যুদ্ধে ইতোমধ্যে ক্ষমতাসীন আওয়ামীলীগ ও জাতীয় পার্টির নেতা ও প্রার্থীরা প্রস্তুতি নিয়েছে। ইতোমধ্যে এ নিয়ে বাকযুদ্ধ সহ স্নায়ুচাপ বিরাজ করছে। বন্দর উপজেলায় চেয়ারম্যান প্রার্থী হিসেবে আওয়ামীলীগের ৩ জনের নাম রয়েছে। সম্ভাব্য মনোনীত প্রার্থীদের মধ্যে রয়েছেন বন্দর থানা আওয়ামীলীগের সভাপতি এম এ রশিদ, জেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক আবু সুফিয়ান, মদনপুর ইউপি চেয়ারম্যান বন্দর থানা ছাত্রলীগের সহ সভাপতি আব্দুস সালাম। অপরদিকে বিএনপি অদ্যাবধি কাউকে প্রার্থী হিসেবে ঘোষণা না করলেও এমপি সেলিম ওসমানের আস্থাভাজন হিসেবে বর্তমান উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আতাউর রহমান মুকুল স্বতন্ত্র প্রার্থী হতে পারেন। জাতীয় পার্টি এখনো কাউকে প্রার্থী ঘোষণা করেনি। তবে এমপি সেলিম ওসমান ঠিকই প্রার্থী দেয়ার বিষয়টি ইঙ্গিত দিয়েছেন। সেক্ষেত্রে আবুল জাহের কিংবা কলাগাছিয়া ইউপির চেয়ারম্যান দেলোয়ার হোসেন প্রধানকে দেখা যেতে পারে। তবে বর্তমানে সক্রিয় আওয়ামীলীগের মনোনয়ন প্রত্যাশী আবু সুফিয়ান। তার মনোনয়ন পাওয়ার সম্ভাবনা জোরালো বলে জানা গেছে। অপরদিকে বিএনপির মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান হিসেবে মাহমুদা আক্তার সক্রিয় রয়েছেন। প্রায় প্রতিনিয়তই তিনি নির্বাচনকে কেন্দ্র করে প্রচার প্রচারণা চালিয়ে যাচ্ছেন।

সেই সাথে বন্দর উপজেলায় ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী হিসেবে আলোচনায় রয়েছে বন্দর থানা যুবলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক সাইদুল ইসলাম জুয়েল, বন্দর থানা আওয়ামী লীগ নেতা রোমান হোসাইন, কলাগাছিয়া ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ইব্রাহিম কাশেম, যুগ্ম সম্পাদক আক্তার হোসেন।

মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী হিসেবে আলোচনায় রয়েছে সালিমা হোসেন শান্তা, মহানগর যুব মহিলা লীগ আহ্বায়ক নুরুন্নাহার সন্ধ্যা, মাহমুদা আক্তার পান্না, মাবিয়া আক্তার। এদের বাইরে বর্তমান মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান হিসেবে দায়িত্ব পালনকারী মাহমুদা আক্তারও আলোচনায় রয়েছেন।



নিউজ নারায়ণগঞ্জ এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আরো খবর
এই বিভাগের আরও