নানা প্রলোভনে ধর্ষণে অন্তঃসত্ত্বার পর মামলায়, কিশোরীর জবানবন্দী

সিটি করেসপন্ডেন্ট || নিউজ নারায়ণগঞ্জ ০৮:৩৭ পিএম, ১২ জুন ২০১৯ বুধবার

নানা প্রলোভনে ধর্ষণে অন্তঃসত্ত্বার পর মামলায়, কিশোরীর জবানবন্দী

নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লার পৌষার পুকুরপাড় এলাকায় ১৪ বছরের কিশোরীকে ধর্ষণের ঘটনায় ধর্ষিতার জবানবন্দী রেকর্ড করেছে আদালত। বুধবার (১২ জুন) সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট ফাহমিদা আক্তারের আদালতে এ জবানবন্দী গ্রহণ করে আদালত। এসময় ভুক্তভোগী কিশোরী (১৪) তার সাথে ঘটে যাওয়া ঘটনার বিবরণ দেয়।

ভুক্তভোগী কিশোরী জানায়, তার মা গার্মেন্ট কাজ করার সুবাধে প্রায়ই বাসার কাজ করাতে ডেকে নিয়ে যেত বাড়িওয়ালার ছেলে আকাশ। এরই মাঝে একদিন ধর্ষণ করে সে। এবং এই কথা বাইরে প্রকাশ করতে না করে। কিশোরী লজ্জায় পরিবারকে জানাতে পারেনি। এ কারণে প্রায়ই ডেকে নিয়ে বিভিন্ন প্রলোভন দেখিয়ে ধর্ষণ করতো আকাশ।

কয়েকমাস পর সে অসুস্থ হয়ে গেলে ডাক্তারের কাছে গিয়ে জানতে পারে সে গর্ভবতী। এসময় বিষয়টি জানাজানি হলে তার মা আকাশের মায়ের কাছে গিয়ে কাবিনের প্রস্তাব দেয়। তবে আকাশের মা তাতে রাজি না হওয়ায় ফতুল্লা থানায় মামলা দায়ের করে কিশোরীর মা।

জানা যায়, ভিক্টিমের বাবা শারিরীক প্রতিবন্ধী। অভাবের সংসারে তার মা ফতুল্লার একটি শিল্প প্রতিষ্ঠানে চাকরি করে। প্রায় ৭ থেকে ৮ বছর যাবৎ তারা ভাড়া থাকেন ফতুল্লার পৌষার পুকুর পাড় এলাকার সেলিম মিয়ার বাড়িতে। ভিক্টিমের মায়ের বাসায় না থাকার ফলেই সুযোগটি নেয় বাড়িওলার ছেলে আকাশ।

তার মা গণমাধ্যমকে জানায়, গত ৪/৫ মাস আগে তার মেয়ে অসুস্থ হয়ে পড়ে। তিনি ফতুল্লারএকটি ডায়াগনস্টিক সেন্টারে মেয়েকে নিয়ে গেলে জানতে পারেন যে তার মেয়ে ৫ মাসের অন্তঃস্বত্তা। এ বিষয়টি আকাশের পরিবারের লোকজন স্থানীয়ভাবে মিমাংসা করার আশ্বাস দিলেও কেউ তাতে এগিয়ে আসেনি।



নিউজ নারায়ণগঞ্জ এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আরো খবর
এই বিভাগের আরও