২৯ অগ্রাহায়ণ ১৪২৪, বুধবার ১৩ ডিসেম্বর ২০১৭ , ৭:১৪ অপরাহ্ণ

বিএনপির সময় যানবাহন বন্ধ আওয়ামীলীগে চালু!


স্পেশাল করেসপনডেন্ট || নিউজ নারায়ণগঞ্জ

প্রকাশিত : ০৮:৫১ পিএম, ১৮ নভেম্বর ২০১৭ শনিবার | আপডেট: ০৮:৩৬ পিএম, ১৯ নভেম্বর ২০১৭ রবিবার


১২ নভেম্বর ঢাকার সোহরাওয়াদী উদ্যানে বিএনপির বিপ্লব ও সংহতি দিবস উপলক্ষে নারায়ণগঞ্জে যানবাহন বন্ধ ছিল।

১২ নভেম্বর ঢাকার সোহরাওয়াদী উদ্যানে বিএনপির বিপ্লব ও সংহতি দিবস উপলক্ষে নারায়ণগঞ্জে যানবাহন বন্ধ ছিল।

গত ১২ নভেম্বর ঢাকায় সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে বিপ্লব ও সংহতি দিবস উপলক্ষ্যে জনসভা করেছিল বিএনপি। সেদিন নারায়ণগঞ্জ সকাল থেকে সকল ধরনের যানচলাচল ছিল বন্ধ। কিন্তু শনিবার ১৮ নভেম্বর ঢাকার একই স্থানে নাগরিক সমাজের ব্যানারে আওয়ামীলীগের জনসভার দিন যানচলাচল ছিল চালু।

এনিয়ে নারায়ণগঞ্জের বিএনপি নেতাদের মধ্যে মিশ্র প্রতিক্রিয়া সৃষ্টি হয়েছে। এখানকার বিএনপি নেতারা বলছেন, সরকার দ্বৈতনীতিতে বিশ্বাসী। তারা চায়না বিএনপি আগামী নির্বাচনে অংশগ্রহন করুক। তারা অন্যায় অত্যাচার হামলা মামলা নির্যাতন করে বিএনপিকে নির্বাচন থেকে দুরে রাখতে চায়। আর বিএনপির সমাবেশে  যাতে লোকজন সমাগম না ঘটে সেজন্য তারা পরিবহন গুলো বন্ধ করে দেয়। কিন্তু তাদের সময় তো পরিবহন বন্ধ করা হলো না।

অভিযোগ তুলেছেন নারায়ণগঞ্জ মহানগর বিএনপির সিনিয়র সহ-সভাপতি অ্যাডভোকেট সাখাওয়াত হোসেন খান। তিনি নিউজ নারায়ণগঞ্জকে বলেন, আমাদের ১২ নভেম্বর ঢাকার সমাবেশে নেতাকর্মীদের আটকে নারায়ণগঞ্জের সকল পরিবহন বন্ধ রাখা হলো। কিন্তু আওয়ামীলীগ যখন ঢাকায় সমাবেশ করছে তখন তো পরিবহন বন্ধ করা হয়নি। সরকার দ্বৈতনীতি অবলম্বন করেছে। এ সরকারের আমলে নির্বাচনে সম্ভন নয়। তারা বিএনপি নেতাকর্মীদের একের পর এ হামলা মামলা নির্যাতন করে বিএনপিকে অন্যায়ভাবে ধমিয়ে রাখার চেষ্টা করছে। এত্তসব অন্যায় অত্যাচারের মাঝে এখন বিএনপির সমাবেশে যাতে লোকজন যেতে পারে তারা পরিবহনগুলো বন্ধ করে দিচ্ছে। কিন্তু তাদের সমাবেশের সময় তো পরিবহনগুলো বন্ধ করেনি।

একই অভিযোগ তুলেছেন জেলা বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক মাসুকুল ইসলাম রাজীব ও মহানগর যুবদলের আহ্বায়ক কাউন্সিলর মাকসুদুল আলম খন্দকার খোরশেদ। তারাও সেদিন বলেছিলেন, বেগম খালেদা জিয়ার সমাবেশে যাতে বিএনপি নেতাকর্মীরা না যেতে পারে সেজন্য নারায়ণগঞ্জের পরিবহনগুলো বন্ধ করে দেয়া হয়। তবুও লাখ লাখ নেতাকর্মী বেগম খালেদা জিয়ার সমাবেশে যোগদান করেছেন। এছাড়াও বিএনপি নেতারা অভিযোগ তুলেছিলেন সেদিন পথে পথে বিএনপি নেতাকর্মীদের আটক করা হয়েছে। বাধা দিয়েছে পুলিশ।

এদিকে শনিবার ঢাকায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সমাবেশে নারায়ণগঞ্জ থেকে পৃথকভাবে কয়েক হাজার নেতাকর্মীরা গিয়েছেন। জেলার সাতটি থানা কমিটির নেতারা ও আগামী জাতীয় নির্বাচনে মনোনয়ন প্রত্যাশিরাও ঢাকায় গিয়েছেন শোডাউন করে। নারায়ণগঞ্জ শহরে মহানগর আওয়ামীলীগ রহস্যজনক কারনে বাস না পেলেও তারা শতাধিক ট্রাকে করে ঢাকায় নেতাকর্মীদের নিয়ে শোডাউন করেছেন। কিন্তু বিএনপির সমাবেশের দিন ট্রেন চলাচলও ছিল অস্বাভাবিক।

নিউজ নারায়ণগঞ্জ এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আপনার মন্তব্য লিখুন:
Shirt Piece

রাজনীতি -এর সর্বশেষ