৭ শ্রাবণ ১৪২৫, রবিবার ২২ জুলাই ২০১৮ , ৮:১০ অপরাহ্ণ

বাবুকে ধাক্কা দিতে গিয়ে আওয়ামী লীগকে ‘দুর্বল’ করলো ইকবাল


স্পেশাল করেসপনডেন্ট || নিউজ নারায়ণগঞ্জ

প্রকাশিত : ০৮:৪৩ পিএম, ২২ ডিসেম্বর ২০১৭ শুক্রবার | আপডেট: ০৯:৫৯ পিএম, ২৪ ডিসেম্বর ২০১৭ রবিবার


বাবুকে ধাক্কা দিতে গিয়ে আওয়ামী লীগকে ‘দুর্বল’ করলো ইকবাল

নারায়ণগঞ্জ জেলা আওয়ামী লীগের নেতাদের প্রথম অনুষ্ঠানেই এক করতে ব্যর্থ হয়ে কমিটিকে কার্যত দুর্বল করেছেন যুগ্ম সম্পাদক ইকবাল পারভেজ এমনটাই মনে করছেন দলের সিনিয়র নেতারা। তাদের মতে, আড়াইহাজারে ইকবাল পারভেজ যে সংবর্ধনা ও শো ডাউনের আয়োজন করেছিল সেখানে মাত্র ৬ থেকে ৭ জন নেতার উপস্থিতিতে হতাশা সৃষ্টি করেছে। এ আয়োজনে আড়াইহাজারের প্রভাবশালী এমপি নজরুল ইসলাম বাবুকে ধাক্কা দেওয়া সহজ হবে না মনে করছেন তারা।

নারায়ণগঞ্জ জেলা আওয়ামী লীগের ৭৪ সদস্যের পূর্ণাঙ্গ কমিটি গঠন করা গত ২৬ নভেম্বর। এর আগে থেকেই আড়াইহাজারে আলাদা বলয় গড়ে তোলার প্রচেষ্টা চালায় জেলা কমিটির যুগ্ম সম্পাদক ইকবাল পারভেজ। কিন্তু সেখানে বাবুর শক্ততার কারণে পারেনি। এ অবস্থায় জেলা আওয়ামী লীগের কমিটিতে বাবুর লোকজন না থাকায় বরং পারভেজের পক্ষে অনেকেই থাকায় হিসেব বদলে যাবে মনে করা হয়। অনেকেই মনে করেন, এ জেলা কমিটিকে কাজে লাগিয়ে ইকবাল পারভেজ হয়তো আড়াইহাজারে আলাদা কিছু করতে পারবেন।

কিন্তু গত ১৫ ডিসেম্বর আড়াইহাজারে জেলা আওয়ামী লীগের সেই জমায়েতে ব্যর্থ হয়েছেন ইকবাল পারভেজ। তাছাড়া সেদিন এমপি বাবুর বড় বোনের কুলখানী থাকার দিনে আওয়ামী লীগের বিজয় মিছিল নিয়েও ওই এলাকাতে ব্যাপক মিশ্র প্রতিক্রিয়ার সৃষ্টি করে। জেলা আওয়ামী লীগের কয়েকজন সিনিয়র নেতা জানান, বাবুকে শায়েস্তা পরেও করা যেত। কিন্তু একটি মৃত্যুর শোকার্ত পরিবেশে আমরা গিয়ে বিজয় মিছিল করলে সেটা রাজনৈতিক অপরিপক্কতা প্রকাশ পেত। সেসব কারণেই আমরা সেখানে যাই নাই।

সেদিন বিকালে বাড়ৈপাড়া মাঠে স্থানীয় আওয়ামীলীগ নেতা সাদেক আলী মেম্বারের সভাপতিত্বে সমাবেশে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন, নারায়ণগঞ্জ জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি মোঃ আব্দুল হাই। বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন, জেলা আওয়ামীলীগের সহ সভাপতি মিজানুর রহমান বাচ্চু, জেলা আওয়ামীলীগের যুগ্ম সম্পাদক ইকবাল পারভেজ, জেলা আওয়ামীলীগের সদস্য ও সাবেক উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান মোজাহিদুর রহমান হেলু সরকার, দপ্তর সম্পাদক এম এ রাসেল, বন ও পরিবেশ সম্পাদক রানু খন্দকার, মহিলা বিষয়ক সম্পাদক মরিয়ম কল্পনা, স্বাস্থ্য ও জনসংখ্যা সম্পাদক ডাঃ মোঃ নিজাম আলী সহ আওয়ামীলীগ নেতৃবৃন্দ।

এ কয়জন ছাড়া জেলা আওয়ামী লীগের ৭৪ সদস্যের আর কাউকেই দেখা যায়নি। ফলে বাবুকে ধাক্কা দিতে ইকবাল পারভেজ শুরুতেই ব্যর্থ হয়েছেন মনে করা হচ্ছে। এর আগে একটি ওয়াজ মাহফিলে একজন হুজুরকে অপদস্ত করতে বাবুর যে ভিডিও আপলোড করেছিল ইকবাল সেটাও ছিল এডিটিং করা। পুরো বয়ানে দেখা যায় ওই হুজুর বর্তমান প্রধানমন্ত্রী, আওয়ামী লীগ ও রাষ্ট্র ব্যবস্থা নিয়ে কড়া সমালোচনা করেছিল। সেখানে ওই হুজুরের পক্ষ নিয়েও ইকবাল উল্টো আওয়ামী লীগ বিদ্বেষী কাজ করেছে।

নিউজ নারায়ণগঞ্জ এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আপনার মন্তব্য লিখুন:
Shirt Piece

রাজনীতি -এর সর্বশেষ