১২ বৈশাখ ১৪২৫, বুধবার ২৫ এপ্রিল ২০১৮ , ১০:৩৬ অপরাহ্ণ

Kothareya1150x300

চামচিকা পাখি হতে চায়, কাউয়া মূয়ুর হতে চায় : শামীম ওসমান


স্পেশাল করেসপনডেন্ট || নিউজ নারায়ণগঞ্জ

প্রকাশিত : ০৯:২৮ পিএম, ২৮ মার্চ ২০১৮ বুধবার | আপডেট: ০৮:২৭ পিএম, ৩০ মার্চ ২০১৮ শুক্রবার


চামচিকা পাখি হতে চায়, কাউয়া মূয়ুর হতে চায় : শামীম ওসমান

নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের সংসদ সদস্য শামীম ওসমান বলেন, আমি কষ্ট পাই, দুঃখ পাই, লজ্জা পাই এই কারণে যে ঝগড়া হতে পারে, নেতৃত্বের কোন্দল থাকতে পারে, তার মানে এই না আমি আপনার দুশমন, আপনি আমার দুষমন। যারা আওয়ামীলীগের কর্মীদের বিরুদ্ধে মামলা দেয়, নির্যাতন করে, আগামীতে তাদের ভবিষ্যৎ খুব একটা ভালো হবে বলে আমার মনে হয় না। নেতাকর্মীদের উপর নির্যাতন আমি, বাবু, রফিক সাহেব মেনে নিবেন, কিন্তু প্রধানমন্ত্রী কখনো তা মেনে নিবেন। কারণ প্রধানমন্ত্রী জানেন আওমীলীগের মূল শক্তি হচ্ছে তৃণমূলের নেতাকর্মীরা।

বুধবার ২৮ মার্চ বিকেলে স্বাধীনতা দিবস উপলক্ষে রূপগঞ্জ উপজেলা আওয়ামীলীগ ও সহযোগী সংগঠনের উদ্যেগে আলোচনা সভা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে শামীম ওসমান এসব কথা বলেন। রূপগঞ্জের রাজনীতিতে আওয়ামীলীগের দুটি ধারা রয়েছে। এর মধ্যে একটির নেতৃত্বে আছেন সরকারদলীয় এমপি গোলাম দস্তগীর গাজী ও অপরটি নেতৃত্বে আছেন উপজেলা চেয়ারম্যান শাহজাহান ভূইয়া। বুধবার শাহজাহান ভূইয়ার গ্রুপের উদ্যোগেই এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

আরো বক্তব্য রাখেন, নারায়ণগঞ্জ-২ আসনের সংসদ সদস্য নজরুল ইসলাম বাবু, উপজেলা চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক শাজাহান ভূইয়া, সহ-সভাপতি খন্দকার আবুল বাশার টুকু, সাংগঠনিক সম্পাদক এনামুল হোসেন, দপ্তর সম্পাদক আব্দুল আজিজ, কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি হাফিজুর রহমান ভূইয়া সজিব, উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান হাবিবুর রহমান হারেজ, দাউদপুর ইউপি চেয়ারম্যান নুরুল ইসলাম জাহাঙ্গীর, সদর ইউপি চেয়ারম্যান আবু হোসেন ভূইয়া রানু, উপজেলা আওয়ামীলীগ নেতা তারিকুল ইসলাম মোঘল, নারায়ণগঞ্জ জেলা পরিষদের সদস্য মিজানুর রহমান মিজান, সালাউদ্দিন ভূইয়া, জেলা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি মনিরুজ্জামান মনির, থানা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি মাসুম চৌধুরী অপু, আওয়ামীলীগ নেতা আলিমুদ্দিন, আব্দুল জাব্বার, আব্দুল আউয়াল, ইয়ার হোসেন, কাইয়ুম বঙ্গবাসী, যুবলীগ নেতা হাজী সফিকুল ইসলাম, আব্দুল আউয়াল, রমজান হোসেন, কামাল হোসেন, নবী হোসেন নবী , সমসের আলী, নজরুল ইসলাম, মতিন মেম্বার, আব্দুল হাই মেম্বার, উপজেলা ছাত্রলীগ নেতা শোয়েব আহমেদ সোহাগ, লুৎফর রহমান মুন্না, রাজেশ কর রুপম, আনোয়ার হোসেন তামিম, পায়েল রহমান প্রমুখ।

শামীম ওসমান বলেন, এগুলো বলতে খারাপ লাগে। সব এলাকায় এসব চলে। চামচিকা পাখি হতে চায়, কাউয়া মূয়ুর হতে চায়, গালি দেয়। আমাকেও গালি দেয়। এগুলো এখন আর গায়ে লাগে না, অভ্যস্ত হয়ে গেছি। কাউকে গালি দিয়ে বড় হওয়া যায় না। বরং ভালোবেসে কাছে টানতে হয়। আওয়ামীলীগের একজন কর্মী হিসেবে যারা মামলা হামলা নির্যাতনের শিকার হয়েছে আমি তাদের কাছে জোর ক্ষমা চেয়ে নিচ্ছি। যা হচ্ছে আমি এবং বাবু যেখানে যাওয়া প্রয়োজন সেখানে যাবো, গিয়ে বোঝাবো। আপনারা ধৈর্য ধরেন। সামনে কঠিন সময়। শকুনেরা ছোবল দিবে।

তিনি বলেন, আমি এমপি না হলে দেশের কিছু আসে যায় না। বাবু এমপি হলে কিছু আসে যায় না, মরে গেলেও কিছু আসে যায় না। কিন্তু আগামীতে আবারও শেখ হাসিনাকে প্রধানমন্ত্রী বানাতে হবে। শেখ হাসিনা বিশ্বনেত্রী হয়ে। তিনি ক্ষমতায় দেশের উন্নয়ন হবে।

আওয়ামীলীগের কর্মী হিসেবে নয় একজন মুসলমান হিসেবে বলি, শেখ হাসিনা দয়াল মানুষ, জাতির জনকের কন্যা। শেখ হাসিনা ক্ষমা করবেন, আমরাও ক্ষমা করবো। ক্ষমতায় যাওয়ার হরতালের নামে মানুষকে পুড়িয়ে মেরেছেন। আমাদের মারতেনসবাই মাফ করলেও আল্লাহ ক্ষমা করবেন না।

নিউজ নারায়ণগঞ্জ এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আপনার মন্তব্য লিখুন:
Shirt Piece

রাজনীতি -এর সর্বশেষ