অপেক্ষার প্রহর বাড়ালো সেলিম ওসমান

সিটি করেসপনডেন্ট || নিউজ নারায়ণগঞ্জ ০৯:২৬ পিএম, ১৬ সেপ্টেম্বর ২০১৮ রবিবার



অপেক্ষার প্রহর বাড়ালো সেলিম ওসমান

আসন্ন জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে ঘিরে নারায়ণগঞ্জের ৫ টি আসনে কে মনোনয়ন পেতে যাচ্ছেন এ নিয়ে জল্পনা কল্পনার অন্ত নেই। তার মধ্যে নারায়ণগঞ্জ-৫ আসনে কে মনোনয়ন পেতে যাচ্ছেন তা ইতোমধ্যে টক অব দ্যা টাউনে পরিণত হয়েছে। কেননা এই আসনটিতে ওসমান পরিবারের সদস্য এমপি সেলিম ওসমান আসন্ন নির্বাচনে অংশগ্রহণ করবেন কি না তা নিয়ে এখনো সিদ্ধান্তে পৌঁছাতে পারেনি। তিনি একের পর এক কাল ক্ষেপন করছেন। তাই এ আসনে কে মনোনয়নের সোনার হরিণ পেতে যাচ্ছে তা নিয়ে জনগণের কৌতুহল থেকেই গেল। আর কবে এমপি সেলিম ওসমান তাঁর মনোনয়নের বিষয়ে সিদ্ধান্ত দিবেন তা নিয়ে নাটকীয়তার নানা দৃশ্য দেখা যাচ্ছে।

রোববার ১৬ সেপ্টেম্বর সকালে জালকুড়ি এলাকার নম পার্কে জাতীয় পার্টির মতবিনিময় সভায় এমপি সেলিম ওসমানের মনোনয়ন ইস্যুতে সিদ্ধান্ত দেয়ার কথা থাকলেও শেষ পর্যন্ত এ বিষয়ে কোন সিদ্ধান্ত দেয়া হয়নি। তিনি কেন্দ্রীয় নেতাদের সিদ্ধান্তের উপর তার সিদ্ধান্ত ছেড়ে দিয়েছেন। তাই এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত পেতে আরো কিছুদিন অপেক্ষা করতে হবে দলের নেতাকর্মী সহ নারায়ণগঞ্জবাসীকে।

আলোচনা সভায় নারায়ণগঞ্জ-৫ আসনে এমপি সেলিম ওসমান বলেন, ‘কমিটির কাছে আমরা মনোনয়নের বিষয়টিতে নাম জমা দিব। আজকের নেতাকর্মী সহ জনগণের আলোচনা শুনে কমিটি সিদ্ধান্ত নিবে। পার্টির সিদ্ধান্তই আমাদের সিদ্ধান্ত। কিন্তু আমাদেরও কথা থাকবে। যদি আমাদের এতোগুলো মানুষের চাহিদা বাইরে যদি অন্য কাউকে উড়ে এসে জুড়ে বসিয়ে দেওয়া হয়। তাহলে আমরা থাকবো কিনা সন্দেহ থাকবে। আমি বিএনপি, আওয়ামীলীগ, জাতীয় পাার্টির আমলে ষড়যন্ত্রের শিকার হয়েছি। আমরা শত অত্যাচার নির্যাতন সহ্য করেও দলকে এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছি। এসব ষড়যন্ত্রের মধ্য দিয়ে আমাদের জীবনকে শেষ করে দেয়া হয়েছে। তবুও আমরা দলের জন্য কাজ করে যাচ্ছি। আমাদের একটা সম্মান আছে। আমাদেরকে যদি সম্মান না দিতে পারেন। এখন যদি কাউকে উড়ে এসে জুড়ে বসানো হয়। আপনাদের যদি ইচ্ছ হয় তাহলে তার সাথে যাবেন। আমরা চলে যাব। আমরা দুইজন সংসদ সদস্য আমরা যদি ভাল কাজ করে থাকি আমাদের দিবেন। আমরা চাইব জাতীয় পার্টির কোন নেতাকর্মী যেন অসহায় জীবন যাপন না করে। অসংখ্য বেকার যুবকদের যদি কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা করতে পারি তাহলে আমার কেন এগিয়ে যেত পারবোনা। আরেকবার সুযোগ চাই আপনাদের কাছে।’এসময় উপস্থিত সবাই হাত উঁচিয়ে বলে আমরা সবাই তাকে সমর্থন করলাম।

জানাগেছে, ‘সম্প্রতি এক সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে এমপি সেলিম ওসমানকে ফের নির্বাচনে অংশগ্রহণের জোর অনুরোধ করেন দলের নেতাকর্মী সহ উপস্থিত সাধারণ জনগণ। সেসময় তিনি উন্নয়ন কাজের বিষয়ে গুরুত্ব দিয়ে মনোনয়ন ইস্যুটিকে জনগণের উপর ছেড়ে দিয়েছেন। তবে পরবর্তীতে জনগণের সিদ্ধান্তের উপর ভিত্তি করে সেপ্টেম্বর মাসে তিনি মনোনয়ন নির্বাচনে অংশগ্রহণ করবেন কিনা তার সিদ্ধান্ত নিবেন। তারই ধারাবাহিকতায় এ মাস জুড়ে তার মনোনয়নের বিষয়টি বেশ আলোচনায় উঠে আসে। তিনি এক অনুষ্ঠানে জানান,  ১৬ সেপ্টেম্বর এক আলোচনা সভায় তার নির্বাচনে প্রার্থীতার বিষয়ে সিদ্ধান্ত জানাবেন।

অপরদিকে  মহাজোট থাকলে আগামী নির্বাচনে নারায়ণগঞ্জে দুটি আসনের বর্তমান এমপি সেলিম ওসমান ও লিয়াকত হোসেন খোকা আবারও মনোনয়ন পেতে যাচ্ছেন। প্রভাবশালী দৈনিক কালের কণ্ঠ ১৩ সেপ্টেম্বর এ সংক্রান্ত একটি খবর প্রকাশ করে। খবরটিতে বলা হয়, জাতীয় পার্টি ও ১৪ দলের শরিক রাজনৈতিক দলগুলোর বর্তমান এমপিদের আসনগুলো ছেড়ে দেওয়ার নীতিগত সিদ্ধান্ত নিয়েছে ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ। একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন নিয়ে এখনো জাতীয় পার্টি ও ১৪ দলের শরিকদের মধ্যে আসন বণ্টন বিষয়ে আনুষ্ঠানিক বৈঠক না হলেও সরকারি মহলে এ বিষয়ে কয়েক দফা আলোচনা হয়েছে। আওয়ামী লীগের উচ্চপর্যায়ের সূত্র কালের কণ্ঠকে এই তথ্য জানিয়ে বলেছে, এর বাইরে আরো সর্বোচ্চ ২১ আসন শরিকদের ছেড়ে দেওয়া হতে পারে। বর্তমান দশম জাতীয় সংসদে জাতীয় পার্টি ও ১৪ দলের শরিক দলগুলোর সরাসরি নির্বাচিত ৪৯ সদস্য রয়েছেন। এর বাইরেও সংরক্ষিত আসনে তাদের এমপি রয়েছেন আরো আটজন। আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে তাদের সর্বোচ্চ ৭০টি আসন ছেড়ে দেওয়ার ব্যাপারে প্রাথমিক আশ্বাস দেওয়া হয়েছে।

এমন পরিস্থিতিতে দলের মধ্যে শুরু থেকে ক্ষমতাসীন আওয়ামীলীগ দলের কয়েক হালি মনোনয়ন প্রত্যাশীর দখল সামলে শেষ সময়ে নিজ দলের আরো দুই মনোনয়ন প্রত্যাশীদের সাথেও প্রতিযোগিতা করতে হচ্ছে এই এমপিকে। তবে নিজ দলের চেয়ে বড় বিষয় হচ্ছে তার বড় ভাই প্রয়াত এমপি নাসিম ওসমানের পত্নী পারভীন ওসমানও এই আসনে মনোনয়ন প্রত্যাশীদের তালিকায় নাম লেখিয়েছেন। তবে মনোনয়ন ইস্যুতে এমপি সেলিম ওসমান এখন পর্যন্ত তেমন কোন সিদ্ধান্ত না দেয়ায় পরিস্থিতি কোন দিকে যাচ্ছে তা বলা সম্ভব হচ্ছেনা।


বিভাগ : রাজনীতি


নিউজ নারায়ণগঞ্জ এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আরো খবর
এই বিভাগের আরও

আরো খবর