বছরের প্রতিদিন টাকা সম্পদ বানিয়েছেন এমপি বাবু ও স্ত্রী

স্পেশাল করেসপনডেন্ট || নিউজ নারায়ণগঞ্জ ০৫:২৫ পিএম, ৫ ডিসেম্বর ২০১৮ বুধবার



বছরের প্রতিদিন টাকা সম্পদ বানিয়েছেন এমপি বাবু ও স্ত্রী

নজরুল ইসলাম বাবু নারায়ণগঞ্জ-২ আসনের সংসদ সদস্য হিসেবে দ্বায়িত্ব পালন করছেন টানা ১০ বছর। ইতোপূর্বে ২০০৮ সাল ও ২০১৪ সালের হলফনামায় তার মাত্রা অতিরিক্ত সম্পদের বৃদ্ধি আলোচিত হয়েছে জাতীয় গণমাধ্যমগুলোতে। যাকে আঙুল ফুলে কলাগাছ হিসেবেও মন্তব্য করেছেন অনেকে। নিউজ নারায়ণগঞ্জের পাঠকদের জন্য তার ২০১৪ সালের ও ২০১৮ সালের হলফনামায় উল্লেখিত সম্পদের বিবরণ তুলে ধরা হলো-

২০১৮ সালে হলফনামায় উল্লেখিত তার সম্পদের বিবরণ

হলফনামা অনুযায়ী এমপি বাবু ব্যবসা কৃষিখাত থেকে আয় ১০ হাজার ২০০ টাকা। বাড়ি ভাড়া ও দোকান ভাড়া থেকে নিজ নামে আয় না থাকলেও স্ত্রীর নামে আয় রয়েছে ১ লাখ ৪৮ হাজার ৫শ টাকা। মৎস্য চাষ হতে আয় ১২ লাখ ৫০ হাজার ৬০০ টাকা। শেয়ার, সঞ্চয়পত্র/ ব্যাংক আমানত নিজ নামে ১৯ হাজার ৬৪৩ টাকা, স্ত্রীর নামে ৪৪ হাজার ৮৩৬ টাকা। তার স্ত্রী চিকিৎসা পেশা হতে আয় করে ৪ লাখ ৫০ হাজার টাকা। তিনি নিজে সংসদ সদস্য হিসেবে সম্মানী ভাতা পান ৬ লাখ ৬০ হাজার টাকা। তার স্ত্রী আয় করে ৩ লাখ ৯৩ হাজার টাকা। নগদ টাকা রয়েছে ১৯ লাখ ২৫ হাজার ৬৮৪ টাকা এবং স্ত্রীর নামে রয়েছে ১০ লাখ ৫৭ হাজার ৪৩৫ টাকা। ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠানের জমাকৃত অর্থের পরিমাণ ১৩ লাখ ১৯ হাজার ৪২৩ এবং স্ত্রীর নামে আছে ১৭ লাখ ৩১ হাজার ৪৪৬ টাকা। শেয়ারের মূল্য ৫ লাখ ৪২ হাজার ৭শ টাকা। স্ত্রীর নামে শেয়ারের মূল্য ৬ লাখ ১২ হাজার ৪৭৭ টাকা। বিভিন্ন ধরনের সঞ্চয়পত্রের মূল্য ১ লাখ ২০ হাজার টাকা। নিজস্ব টয়োটা ল্যান্ড ক্রজার জীপ গাড়ির মূল্য ১ কোটি ৬ লাখ ৪০ হাজার ৪০৩ টাকা। ৬ লাখ ১২ হাজার ১৮৬ হাজার টাকা সমমূল্যের স্বর্ণলংকার সহ ৩৫ ভরি স্বর্ণালংকার রয়েছে যার মূল্য জানা নেই। স্ত্রীর নামে ৫২.২৩ ভরি স্বর্ণালংকার আছে যার মূল্য জানা নেই। ইলেকট্রিক সামগ্রীর মূল্য ৩ লাখ ৩০ হাজার টাকা। আসবাবপত্র ৪ লাখ ১১ হাজার টাকা। স্ত্রীর নামে আছে ২ লাখ ১৩ হাজার টাকা। অকৃষি জমির মূল্য আছে ২ কোটি ৬ লাখ ৯৫ হাজার ৭২০ টাকা। স্ত্রীর নামে আছে ৯৫ লাখ ৬২ হাজার টাকা। দালান সহ জমির মূল্য ৩ লাখ ১৫ হাজার টাকা। স্ত্রীর নামে আছে ৩৯ লাখ ৩১ হাজার টাকা। বাড়ি, এপার্টমেন্ট ও অর্জনকারী সময়ে আর্থিক মূল্য ৮১ লাখ টাকা। অন্যান্য খাতে আয় ৪১ লাখ টাকা।

২০১৪ সালে হলফনামায় উল্লেখিত তার সম্পদের বিবরণ

৫ জানুয়ারি অনুষ্ঠিত জাতীয় সংসদ নির্বাচনেই বাবু ছিলেন কয়েক কোটি টাকার মালিক। তার নিজ ও স্ত্রীর নামেই রয়েছে নগদ প্রায় ১ কোটি টাকা ও আরো কয়েক কোটি টাকার সম্পদ। তিনি তার নিজ নামে নগদ ৭২ লাখ ২১ হাজার ৫২৭ টাকা রয়েছে উল্লেখ করেন। স্ত্রীর নামে আছে আরো ৩ লাখ ৩২ হাজার টাকা। ব্যাংকে নিজের নামে রয়েছে ১১ লাখ ৭ হাজার ৯৫৩ টাকা। স্ত্রীর নামে আছে ১১ লাখ ৫২ হাজার ১১৬ টাকা। বন্ড, ঋণপত্র, সহ শেয়ার আছে নিজ নামে ৫ লাখ ৪২ হাজার ৭শ টাকার। স্ত্রীর নামে আছে ৬ লাখ ১২হাজার টাকা। নিজ নামে ৫ বছর মেয়াদী সঞ্চয়পত্র আছে ১ লাখ ২০ হাজার টাকার ও স্ত্রীর নামে ১ লাখ ৪৪ হাজার টাকা।

এমপি বাবুর নিজের জিপ গাড়ির নাম উল্লেখ করেছেন ৩৪ লাখ টাকা টাকা। নিজ নামে ৩৫ ভরি ও স্ত্রীর নামে ৭৮ ভরি স্বর্ণালংকার আছে। এছাড়া বাবুর কাছে আছে ৩২ বোরের একটি পিস্তল ও একটি ১২ বোরের শর্টগান যার মূল্য ৬ লাখ ১২হাজার টাকা।

বাবু হলফনামায় বলেছেন, তিনি পৈত্রিক সূত্রে ৩৩ শতাংশ জমির মালিক। এছাড়া অকৃষি জমি রয়েছে ৩৭০ শতাংশ যার মূল্য ২ কোটি ১০ লাখ ১০ হাজার ৭২০ টাকা। স্ত্রীর নামে আছে ৫১ লাখ ৫৭ হাজার টাকা।

স্ত্রীর নামে ৩৯ দশমিক ৫০ শতাংশ জমির উপর এক তলা সেমি পাকা ঘর রয়েছে যার মূল্য ৩৯ লাখ ৩১ হাজার টাকা। বাবুর নামে ৩২শ বর্গফুটের একটি ফ্ল্যাট রয়েছে যার মূল্য ৮১ লাখ টাকা।

নজরুল ইসলাম বাবু সুদবিহীন ৬৯ লাখ টাকা ঋণ রয়েছে বলে হলফনামায় উল্লেখ করেন। নজরুল ইসলাম বাবু গত ৫ বছরে এমপি থাকা সময়ে আড়াইহাজার এলাকাতে শিক্ষা ও উন্নয়নের প্রসার, আইনের শাসন প্রতিষ্ঠা, জনগণের প্রত্যাশা পূরণ ও মাদকমুক্ত সমাজ গঠনে শতভাগ সফল বলেও হলফনামায় উল্লেখ করেন।


বিভাগ : রাজনীতি


নিউজ নারায়ণগঞ্জ এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আরো খবর
এই বিভাগের আরও