আওয়ামী লীগের দুই গ্রুপে চরম উত্তেজনা

স্পেশাল করেসপনডেন্ট || নিউজ নারায়ণগঞ্জ ০৮:৩৮ পিএম, ২১ জুন ২০১৯ শুক্রবার

আওয়ামী লীগের দুই গ্রুপে চরম উত্তেজনা

নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলার ফতুল্লার কাশীপুরে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে বিরোধের জের ধরে আওয়ামীলীগ নেতা শফিউল্লাহ শফি ও শাহীন গ্রুপের মধ্যে উত্তেজনা বিরাজ করছে। এরই মধ্যে এক পক্ষ অপর পক্ষের বিরুদ্ধে মানববন্ধন করেছে।

এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে, দীর্ঘদিন ধরে কাশিপুর উত্তর কাশিপুরে ফতুল্লা থানা আওয়ামীলীগের যুব ও ক্রীয়া বিষয়ক সম্পাদক শফিউল্লাহ শফি ও কাশিপুর ইউনিয়ন ২নং ওয়ার্ড যুবলীগের সভাপতি (বর্তমান বহিস্কৃত) শাহিন আলমের মধ্যে প্রভাব বিস্তার নিয়ে বিরোধ চলে আসছিল। তারা একে অপরকে ঘায়েল করতে নানা ধরনের কুট-কৌশল চালিয়ে আসছিল। একপর্যায়ে শাহিনকে কোনঠাসা করতে শফি বাদী হয়ে শাহিন সহ তার লোকদের বিরুদ্ধে ফতুল্লা থানায় একটি চাঁদাবাজি মামলা দায়ের করে। আর সেই মামলা শাহিন ১০দিন হাজতভোগ করেন।

শাহিন জামিনে বের হওয়ার পর দুই গ্রুপের মধ্যে দেখা দেয় উত্তেজনা। ১৪ জুন শুক্রবার জুম্মা নামাজ পড়তে যাওয়ার সময় শফিউল্লাহ শফি ও তার ছেলে সনমকে কুপিয়ে আহত করে শাহিনের লোকজন। এ ঘটনায় শাহিনকে প্রধান আসামী করে শফিউল্লাহর ভাতিজা রনি বাদী হয়ে মামলা দায়ের করে। আর এ ঘটনার পর শাহিন আলমসহ তার লোকজন এলাকা ছেড়ে পালিয়ে যায়। আর শাহিন সহ তার লোকজন আত্মগোপনে থাকার সুযোগে শফি বাহিনীর লোকজন এলাকায় ত্রাসের রাজত্ব কায়েম করে। শফি বাহিনীর অন্যতম সদস্য ভোলাইল শান্তিনগরের সফর আলীর ছেলে হীরা তার বাহিনীর লোকজন নিয়ে শাহিনসহ তার লোকদের বাড়ি ঘর ভাঙচুর সহ লুটপাট করে।

এদিকে বৃহস্পতিবার বিকেলে ফতুল্লার ভোলাইল শান্তিনগর এলাকায় কাশিপুর ইউনিয়ন ২নং ওয়ার্ডবাসীর ব্যানারে এ মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করা হয়।

মানববন্ধনে বক্তারা বলেন, হীরা বিগত সময়ে বিএনপি ক্ষমতা থাকাকালিন তার মামা মনিরের ক্ষমতার দাপটে এলাকায় ত্রাসের রাজত্ব কায়েম করেছিল। আওয়ামীলীগ ক্ষমতার আসার পর কিছুদিন নিরব থাকার পর কৌশলে আওয়ামীলীগ নেতার সাথে আতাত করে তার দলে কাজ করা শুরু করে। আর আওয়ামীলীগ নেতার ছত্রছায়ায় হীরা ও সালু এলাকায় মাদক ব্যবসা শুরু করে। এছাড়াও এলাকায় প্রভাব বিস্তার করতে বিশাল বাহিনী গড়ে তোলে হীরা। আর তাদের বিরুদ্ধে যে কথা বলবে তাকেই নাজেহাল করতো এবং মারধর করতো। হীরা নিজেকে আড়াল করতে এলাকায় সিমেন্টে ব্যবসার দোকান দেয়। আর সেই ব্যবসার অন্তরালে হীরা ও সালু এলাকায় মাদক ব্যবসা শুরু করে।

বক্তারা আরও বলেন, গত কয়েক দিন হীরা আলাদা ক্ষমতা পেয়ে শান্তিনগরের মানুষের জীবনে অশান্তি বয়ে এনেছে। যাকে খুশি তাকে ধরে মারধর শুরু করছে। বুধবার হীরার নেতৃত্বে একদল সন্ত্রাসী শরীফ সহ কয়েকজনকে মারধর করে গুরুতর আহত করে। এলাকায় একক ভাবে প্রভাব বিস্তার করতে এই হীরা তার বাহিনী নিয়ে এলাকায় নিয়মিত মহড়া দিয়ে চলছে। এতে করে এলাকার সাধারন মানুষের মনে দেখা দিয়েছে আতঙ্ক। হীরা বাহিনীর হাত থেকে  মুক্তি পেতে এলাকার নারী-পুরুষ রাস্তা নেমে এসেছে। তাই হীরা, সালুসহ এ বাহিনীর বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নিতে প্রশাসনের কাছে জোর দাবি করেন এলাকাবাসী।


বিভাগ : রাজনীতি


নিউজ নারায়ণগঞ্জ এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আরো খবর
এই বিভাগের আরও