খালেদার মুক্তি চায়না নারায়ণগঞ্জ বিএনপি

স্পেশাল করেসপনডেন্ট || নিউজ নারায়ণগঞ্জ ০৮:৪৮ পিএম, ১৩ ডিসেম্বর ২০১৯ শুক্রবার

খালেদার মুক্তি চায়না নারায়ণগঞ্জ বিএনপি

কারাবন্দী বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার জামিন আবেদন খারিজ করে দিয়েছে আদালত। এ ঘটনার তীব্র প্রতিবাদ জানিয়ে নারায়ণগঞ্জ মহানগর যুবদলের নেতাকর্মীরা রাজপথে নামেন। এছাড়া নারায়ণগঞ্জের কোন বিএনপি নেতাকর্মীরা মাঠে নামেনি। যদিও রায়ের আগে নারায়ণগঞ্জের আদালতপাড়ায় বিএনপি পন্থী আইনজীবীরা বিক্ষোভ মিছিল করেছেন। তবে আদালতের রায়ের পরে মহানগর যুবদল ছাড়া খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে আর কেউ রাজপথে নামেনি। এতে করে নারায়ণঞ্জের বিএনপি নেতাকর্মীরা খালেদা জিয়ার মুক্তি চায়না যা তাদের কর্মকান্ডের পরিষ্কার হয়েছে।

সংশ্লিষ্টরা বলছেন, বিএনপির যেসব নেতাকর্মীরা দেশ নেত্রী খালেদা জিয়ার মুক্তি চায় তারা কখনো চুপ থাকতে পারেনা। শত বাধা ঢিঙিয়ে তারা আওয়াজ তুলবে যার প্রমাণ দিয়েছে নারায়ণগঞ্জ মহানগর যুবদলের নেতাকর্মীরা। অন্যদিকে যেসব নেতাকর্মীরা খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে আন্দোলন কিংবা এই রায়ের প্রতিবাদ জানায়নি তারা মূলত বেগম জিয়ার মুক্তি চায়না এ বিষয়টি একেবারে স্পষ্ট।

জানা যায়, জিয়া অরফানেজ চ্যারিটেবল ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার জামিন প্রশ্নে আপিল বিভাগের শুনানি ছিল ১২ ডিসেম্বর বৃহস্পতিবার। এর আগে গত ৫ ডিসেম্বর খালেদা জিয়ার মেডিকেল রিপোর্ট দাখিলে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের পক্ষে সময় চান অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম। আদালত ১১ ডিসেম্বরের মধ্যে মেডিকেল রিপোর্ট দুটি দাখিলের নির্দেশ দেন। আর শুনানির দিন ঠিক করে দেন ১২ই ডিসেম্বর। যার ধারাবাহিকতায় ১২ ডিসেম্বর বৃহস্পতিবার সকাল থেকেই বেগম খালেদা জিয়ার জামিন শুনানিকে কেন্দ্র করে সারা দেশের মত নারায়ণগঞ্জেও বাড়তি নিরাপত্তা ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়। অন্যদিকে খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবীতে কর্মসূচি পালনের জন্য প্রস্তুত ছিলেন বিএনপি আইনজীবীরা। এছাড়া শহরজুড়ে বিএনপি পন্থী নেতাকর্মীদেরও সরব হওয়ার খবর ছিল। তবে বাস্তবতা একেবারে ভিন্ন ছিল।

ওই দিন সকাল থেকে দুপুর পর্যন্ত খালেদা জিয়ার মামলার শুনানি চলে। তবে শেষতক জামিন আবেদন খারিজ করে দেয়া হয়। নারায়ণগঞ্জ কোর্টে বিএনপি পন্থী আইনজীবীরা রায়ের আগে বিক্ষোভ মিছিল পালন করলেও রায়ের পরে কোন কর্মসূচি পালনে দেখা যায়নি।

এদিকে কারাবন্দি বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার জামিন আবেদন খারিজের প্রতিবাদে তাৎক্ষনিক বিক্ষোভ মিছিল করেছে নারায়ণগঞ্জ মহানগর যুবদলের নেতাকর্মীরা। একই সাথে অবিলম্বে তার মুক্তির দাবি করেন তারা। ওই দিন দুপুরে আদালতে জামিন আবেদন খারিজের পর তাৎক্ষনিক মহানগর যুবদলের সভাপতি মাকসুদুল আলম খন্দকার খোরশেদ ও সাধারণ সম্পাদক মমতাজ উদ্দিন মন্তুর নেতৃত্বে এ বিক্ষোভ মিছিল হয়। মিছিলটি শহরের উকিলপাড়া থেকে শুরু হয়ে চাষাঢ়ার দিকে আসার সময় নারায়ণগঞ্জ ক্লাবের সামনে পুলিশের বাধায় পড়ে। এসময় মিছিল থেকে নেতাকর্মীদের ব্যানার কেড়ে নিয়ে নেতাকর্মীদের ধাওয়া দিলে পুলিশের সাথে তাদের ধাওয়া পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটে। তবে এ ঘটনায় কোন আহত কিংবা আটক নেই।

মহানগর যুবদল ছাড়া আর কোন বিএনপি সংগঠনকে বেগম জিয়ার মুক্তির দাবিতে আওয়াজ তুলতে দেখা যায়নি। তবে রায়ের আগে বেগম খালেদা জিয়ার রায়কে কেন্দ্র করে বিএনপি ও আওয়ামীলীগ পন্থী আইনজীবীদের পাল্টাপাল্টি বিক্ষোভ মিছিলে উত্তপ্ত হয়ে পড়েছিল নারায়নগঞ্জ আদালতপাড়া। তখন উভয় পক্ষের পাল্টাপাল্টি স্লোগান ও বক্তৃতায় নেতাকর্মীদের মধ্যে ছিল টানটান উত্তেজনা। তবে কোন ধরনের অপ্রীতিকর ঘটন ঘটেনি।

তৃণমূল নেতাকর্মীরা বলছেন, দলের চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার জন্য আমাদেরও মন কাঁদে। কিন্তু আমাদের সংগঠনের নেতৃত্বের কারণে আমরা মাঠে নামতে পারছিনা। তার মুক্তির দাবিতে আওয়াজ তুলতে পারছিনা। আমাদের সংগঠনের নেতারা এই রায়কে কেন্দ্র করে কোন ধরনের কর্মসূচির আয়োজন করেনি। তাছাড়া পুলিশি বাধার ভয়ে অনেকে আতœগোপনে আছে। তাই নেতৃত্বের অভাবে তৃণমূল নেতাকর্মীরা উভয় সংকটে পড়েছে।

নেতাকর্মীরা আরো বলছে, নতুন কমিটি কিংবা পদ পদবীর প্রয়োজন হলে নেতাকর্মীদের ঢল নামে। কিন্তু বেগম জিয়ার মুক্তির দাবিতে কাউকে পাওয়া যায়না। সবাই তখন পুলিশি বাধার অজুহাত দেখায়। তারা পদে বসতে রাজি আছে কিন্তু আন্দোলন সংগ্রামে নেই। একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের আগে মনোনয়নের জন্য সব নেতাদের সরবতা দেখা গেছে। এছাড়া বিভিন্ন সংগঠনের কমিটি ঘোষণার সময় হলে নেতারা জেগে ওঠে। আর বাকি সময় তারা আত্মগোপনে থাকে নানা অজুহাতে। এই বিষয়গুলো এখন সবার কাছে ওপেন সিক্রেটে পরিণত হয়েছে।


বিভাগ : রাজনীতি


নিউজ নারায়ণগঞ্জ এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আরো খবর
এই বিভাগের আরও