চাষাঢ়ায় মদের বার ঘেরাও কর্মসূচী স্থগিত, ফের চালু হলে আন্দোলন

স্পেশাল করেসপনডেন্ট || নিউজ নারায়ণগঞ্জ ০৯:১৮ পিএম, ১৩ ফেব্রুয়ারি ২০২০ বৃহস্পতিবার

চাষাঢ়ায় মদের বার ঘেরাও কর্মসূচী স্থগিত, ফের চালু হলে আন্দোলন

নারায়ণগঞ্জ শহরের চাষাঢ়ায় বালুর মাঠ এলাকায় প্যারাডাইস ভবনে ‘ব্লু পিয়ার’ নামক রেস্টুরেন্ট কাম মদের বারের সামনে জেলা ওলামা পরিষদের অবস্থান ও ঘেরাও কর্মসূচী স্থগিত করা হয়েছে।

১৩ ফেব্রুয়ারী বৃহস্পতিবার দুপুরে নারায়ণগঞ্জ প্রেসক্লাবের সামনে এক ব্রিফিংয়ে জেলা ওলামা পরিষদের সভাপতি মাওলানা আব্দুল আউয়াল কর্মসূচি স্থগিতের এই ঘোষণা দিয়েছেন।

কর্মসূচি স্থগিতের ব্যাপারে মাওলানা আব্দুল আউয়াল বলেন, আমরা প্যারাডাইস ভবনে ‘ব্লু পিয়ার’ নামক রেস্টুরেন্ট কাম মদের বার বন্ধের দাবীতে আগামী শুক্রবার বিশাল গণ জমায়েতের ঘোষণা দিয়েছিলাম। তবে এই কর্মসূচির একদিন আগেই মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের পক্ষ থেকে এই বারটি বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে।

সেই সাথে ১৩ ফেব্রুয়ারী বৃহস্পতিবার নারায়ণগঞ্জ-৫ আসনের সংসদ সদস্য সেলিম ওসমান, নারায়ণগঞ্জ জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আব্দুল হাই ও সাধারণ সম্পাদক আবু হাসনাত শহীদ বাদল আমাদেরকে আশ্বাস দিয়েছেন এটি আর চালু হবে না। আর তাদের আশ্বাসে আমরা আমাদের কর্মসূচি স্থগিত ঘোষণা করেছি। পরবর্তীতে আবার চালু করার চেষ্টা করা হয় তাহলে আমরা আবারো কঠোর কর্মসূচি দিব।

তিনি আরও বলেন, নারায়ণগঞ্জ শহরের প্রাণকেন্দ্রে মসজিদ, হাসপাতাল, শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ও আবাসিক এলাকার পাশে মদের বার ইসলাম ও শান্তিপূর্ণ পরিবেশ বিরোধী। আর এই পরিবেশ বিরোধী কাজ বন্ধে নারায়ণগঞ্জের জনপ্রতিনিধি ও সাংবাদিক সমাজ সহ সকল স্তরের মানুষ আমাদের পাশে ছিলেন। এই জন্য তাদের প্রতি ধন্যবাদ জ্ঞাপন করছি।

রাইফেল ক্লাবে আব্দুল আউয়াল বলেন, নারায়ণগঞ্জে ব্লু পিয়ার নামে একটি মদের বার গড়ে ছিল তাঁরা। আমরা ওলামা পরিষদের পক্ষ থেকে বার বার তাঁদেরকে সতর্ক করে দিয়েও আমরা দেখছি যে কোনো কিছু হচ্ছে না। গত শুক্রবার ওলামা পরিষদের পক্ষ থেকে ডিআইটি চত্ত্বরের সমাবেশ থেকে আমরা তাঁদেরকে ১ সপ্তাহের আল্টিমেটাম দিয়ে সংসদ সদস্য শামীম ওসমান ও সেলিম ওসমানকে আমরা আহ্বান জানিয়েছিলাম যেহেতু তাঁর নির্বাচনি এলাকা এটি তাই তিনি চাইলেই এটি বন্ধ করতে পারেন। সেই হিসাবে এটি দৃষ্টি গোচর হওয়ার পরে দেখলেন যে আসলে এটাকে কি করে কোন আইনের প্রেক্ষিতে এটাকে বন্ধ করা যেতে পারে। সংসদ সদস্যের কাছে দাবি এই ধরনের একটি গোনগুনার কাজ শহরের প্রাণকেন্দ্রে কোনভাবেই মেনে নিতে পারি না। এটি ক্ষণস্থায়ী নয় স্থায়ীভাবে এখান থেকে উচ্ছেদ করে দেওয়া হোক। এর জন্য নারায়ণগঞ্জের সুধিজন যারা আছেন তাঁরাও আপনাকে ধন্যবাদ জানাবে।

এসময় উপস্থিত ছিলেন নারায়ণগঞ্জ জেলা উলামায়ে পরিষদের সহ সভাপতি মাওলানা আব্দুল কাদির, উলামায়ে পরিষদ নেতা মাওলানা ফেরদাউসুর রহমান, ইসমাঈল হোসাইন সিরাজী, মুফতি হারুনুর রশিদ ও মুফতি দেলোয়ার হোসাইন সহ অন্যান্য নেতৃবৃন্দ।

প্রসঙ্গত, ‘ব্লু পিয়ার’ নামক রেস্টুরেন্ট কাম মদের বারে মদ বিক্রি বন্ধ না হওয়ায় পূর্বঘোষণার অংশ হিসেবে গত ১৩ ফেব্রুয়ারী বুধবার এক সভায় সিদ্ধান্ত অনুযায়ী শুক্রবার জুমআর নামাজের পর চাষাঢ়ায় মদের বারের সামনে অবস্থান ও ঘেরাও কর্মসূচী ঘোষণা করেছিলেন জেলা ওলামা পরিষদ।


বিভাগ : রাজনীতি


নিউজ নারায়ণগঞ্জ এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আরো খবর
এই বিভাগের আরও