৭ শ্রাবণ ১৪২৫, সোমবার ২৩ জুলাই ২০১৮ , ৪:০৬ পূর্বাহ্ণ

শনিবার স্নানোৎসব, প্রস্তুত লাঙ্গলবন্দ


স্পেশাল করেসপনডেন্ট || নিউজ নারায়ণগঞ্জ

প্রকাশিত : ১০:০৪ পিএম, ২২ মার্চ ২০১৮ বৃহস্পতিবার | আপডেট: ১১:৩৮ পিএম, ২২ মার্চ ২০১৮ বৃহস্পতিবার


শনিবার স্নানোৎসব, প্রস্তুত লাঙ্গলবন্দ

জগতের যাবতীয় সংকীর্ণতা ও পঙ্কিলতার আবরণ থেকে মুক্তির বাসনায় নারায়ণগঞ্জের বন্দর উপজেলার লাঙ্গলবন্দের ব্রহ্মপুত্র নদে অষ্টমী স্নান শুরু হবে ২৪ মার্চ শনিবার যা চলবে ২৫ মার্চ সকাল ৮টা পর্যন্ত। দেশি ও বিদেশি আগত ভক্তদের স্নান উৎসব শান্তিপূর্ণ ও নির্বঘ্নে পালন করার লক্ষ্যে ইতোমধ্যে সকল প্রস্তুতি শেষ পর্যায়ে জানিয়েছেন হিন্দু নেতারা।

বৃহস্পতিবার সরেজমিনে বন্দরের লাঙ্গলবন্দের ব্রহ্মপুত্র নদের গিয়ে দেখা গেছে, অন্যবার কচুরিপনা থাকলেও এবার সেটা দূর হয়েছে। স্নানের পর নারী পুণ্যার্থীদের কাপড় বদলের নেই কোন সুব্যবস্থা। ঘাটগুলোর পাশে কয়েকটি ছোট রুম থাকলেও চাহিদার তুলনায় অনেক কম। এছাড়াও সেগুলো নোংরা ও অপরিষ্কার। এখনও নতুন করে অস্থায়ী কোন কাপড় বদলের সুব্যবস্থা করা হয়নি। তবে স্নান উপলক্ষে ৩৩টি ধর্মীয় স্বেচ্ছাসেবী সামাজিক সেবামূলক সংগঠন পুণ্যার্থীদের সেবা দিতে ক্যাম্প স্থাপন করা হচ্চে। এসব ক্যাম্প থেকে পুণ্যার্থীদের রান্না করা খাবার ও চিকিৎসা দেওয়া হবে।

বাংলাদেশ হিন্দু কল্যাণ সংস্থার কেন্দ্রীয় সদস্য রনজিৎ মোদক জানান, এবার ললিত সাধুর ঘাট, অন্যপূর্ণ ঘাট, রাজ ঘাট, কালীগঞ্জ ঘাট, মা কুঁড়ি সাধুর ঘাট, মহাত্মা গান্ধী ঘাট, বড় দেশ্বরী ঘাট, জয়কালি ঘাট, রক্ষাকালী ঘাট, প্রেম তলা ঘাট, চর শ্রীরাম ঘাট, সাবদি ঘাট, বাসনকালী ও জগৎবন্ধু ঘাটে স্নান করা হবে।

লাঙ্গলবন্ধ স্নান উৎসব উদযাপন পরিষদের কার্যকারী সদস্য ও বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদ নারায়ণগঞ্জ জেলার সভাপতি শংকর সাহা বলেন, ইতোমধ্যে স্নানোৎসবের সকল প্রস্তুতি শেষ পর্যায়ে। পুণ্যার্থীদের জন্য নদীতে নির্দিষ্ট সীমানের মধ্যে বাঁশের বেড়া দিয়ে দেওয়া হবে।’

তিনি আরো বলেন, ‘এবছর স্নানের তিথি দুইদিনে হওয়ায় ভক্তরা শান্তিপূর্ণ ভাবে স্নান করতে পারবে। শনিবার সকাল ১০টা ১৪ মিনিট থেকে পরদিন রোববার সকাল ৭টা ৫২ মিনিট পর্যন্ত তিথি রয়েছে। এ সময়ের মধ্যে ভক্তরা পুণ্য স্নান করবেন। দীর্ঘ সময় হওয়ায় এবার ঘাটগুলো ভীড় না হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। তারও পরিস্থিতি মোকাবেলায় ২০০ থেকে ২৫০ স্বেচ্ছাসেবক কর্মী ২৪ ঘন্টা কাজ করে যাবে।’

লাঙ্গলবন্ধ স্নান উৎসব উদযাপন পরিষদের সভাপতি সরোজ কুমার সাহা বলেন, ‘পুণ্যার্থীদের জন্য ১০০টি অস্থায়ী পয়ঃনিষ্কাশন ব্যবস্থা, ৬০টি গভীর নলকূপ সহ ট্যাংকের সাহায্যে অস্থায়ী বিশুদ্ধ জল থাকবে। পুণ্যার্থীদের কাপড়ের বদলের জন্য বড় করে অস্থায়ী প্যান্ডেল করা হবে। ইতোমধ্যে সব প্রস্তুতি শেষ। আশা করি শান্তিপূর্ণ ভাবে স্নানোৎসব পালন করতে পারবে ভক্তরা।’

নিউজ নারায়ণগঞ্জ এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আপনার মন্তব্য লিখুন:
Shirt Piece

ধর্ম -এর সর্বশেষ